default-image

আইনমন্ত্রী আনিসুল হক জানিয়েছেন, ৫৮ কার্যদিবসে সারা দেশের অধস্তন ভার্চ্যুয়াল আদালতের মাধ্যমে ১ লাখ ৪৭ হাজার ৩৩৯টি জামিনের আবেদন নিষ্পত্তি করা হয়েছে। এর মাধ্যমে ৭২ হাজার ২২৯ জনকে জামিন দেওয়া হয়েছে।

আজ সোমবার জাতীয় সংসদে সরকারি দলের সাংসদ আলী আজমের প্রশ্নের জবাবে আইনমন্ত্রী এই তথ্য জানান। স্পিকার শিরীন শারমিন চৌধুরীর সভাপতিত্বে বৈঠকের শুরুতে প্রশ্নোত্তর টেবিলে উপস্থাপিত হয়।

জাতীয় পার্টির সাংসদ মসিউর রহমানের প্রশ্নের জবাবে আইনমন্ত্রী আনিসুল হক বলেন, দেশের জেলা রেজিস্ট্রার ও সাবরেজিস্ট্রার অফিসে কর্মরত নকল নবিশের সংখ্যা ১৬ হাজার ২৪৫ জন। সাবরেজিস্ট্রার অফিসে কর্মরত নকল নবিশদের চাকরি রাজস্ব খাতে ন্যস্ত করার পরিকল্পনা রয়েছে। তাঁদের চাকরি স্থায়ীকরণের বিষয়ে আইন ও বিচার বিভাগ ইতিমধ্যে জনপ্রশাসন মন্ত্রণালয়ে সুপারিশ পাঠিয়েছে। বিষয়টি প্রক্রিয়াধীন রয়েছে। অচিরেই বাস্তবায়িত হবে।

বিজ্ঞাপন

সরকারি দলের সাংসদ বেনজীর আহমেদের প্রশ্নের জবাবে মৎস্য ও প্রাণিসম্পদ মন্ত্রী শ ম রেজাউল করিম জানান, দেশের ২ কোটি ৪৩ লাখ ৯১ হাজার গরুর মধ্যে ৪৮ শতাংশ সংকর জাতে রূপান্তরিত হয়েছে।

মাহফুজুর রহমানের প্রশ্নের জবাবে মৎস্য ও প্রাণিসম্পদমন্ত্রী জানান, দেশব্যাপী কোভিড-১৯-এ ক্ষতিগ্রস্ত বিভিন্ন ক্যাটাগরির ৬ লাখ ২০ হাজার খামারিকে ৮১২ কোটি টাকা আর্থিক সহায়তা দেওয়া হবে।

আবদুস শহীদের প্রশ্নের জবাবে মৎস্য ও প্রাণিসম্পদমন্ত্রী জানান, বাংলাদেশ বর্তমানে গবাদিপশু ও মাংস উৎপাদনে স্বয়ংসম্পূর্ণতা অর্জন করেছে। ক্রমবর্ধমান চাহিদার বিপরীতে ইতিমধ্যে মাংস ও ডিম উৎপাদনের লক্ষ্যমাত্রা অর্জন করেছে। কিন্তু দুধ উৎপাদনে ৩০ শতাংশ ঘাটতি রয়েছে।

সংরক্ষিত আসনের বেগম মনিরা সুলতানার প্রশ্নের জবাবে শ ম রেজাউল করিম বলেন, বর্তমানে দেশে বছরে ৪৩ দশমিক ৪১ লাখ টন মাছের চাহিদার বিপরীতে উৎপাদন ৪৩ দশমিক ৮৪ লাখ টন। দৈনিক মাথাপিছু ৬০ গ্রাম মাছের চাহিদার বিপরীতে মাছ গ্রহণের পরিমাণ ৬২ দশমিক ৫৮ গ্রাম।

বাংলাদেশ থেকে আরও পড়ুন
মন্তব্য করুন