উদ্বোধনী আয়োজনে বক্তব্য দেন অস‌লো বিশ্ব‌বিদ্যাল‌য়ের রেক্টর স্তভাইন স্তাই‌ন, অসলো সিটির ডেপুটি মেয়র আবদুল্লাহ আলসা‌বেগ, আয়োজনের পৃষ্ঠ‌পোষক প্রতিষ্ঠান একোইন‌রের ভাইস প্রেসিডেন্ট গভর্নমেন্ট রিলেশনস অ্যান্ড পাবলিক অ্যাফেয়ার্স ট্রু‌দে মসআই‌দে এবং আইএমও সভাপতি জিওফ স্মিথ।

জিওফ স্মিথ বলেন, ‘দীর্ঘদিন পরে আমরা সবাই সরাসরি অলিম্পিয়াডে অংশ নিতে পারছি। আইএমও সব শিক্ষার্থীর জন্য শুধু প্রতিযোগিতাই নয়, এটা একটা নেটওয়ার্কিং করার সুযোগও বটে। এটা তরুণ গণিতবিদদের জন্য উৎসব।’

স্তভাইন স্তাইন বলেন, ‘সবাইকে অসলো শহরে আমন্ত্রণ। গণিত কিন্তু মুখের ভাষা নয়, বিজ্ঞানের ভাষা। গণিতকে বুঝতে হলে প্রয়োজন ধৈর্য, প্রয়োজন প্রচেষ্টা। গণিত অলিম্পিয়াডে অংশগ্রহণকারী শিক্ষার্থীসহ আয়োজক সবাইকে অভিনন্দন।’

বাংলাদেশ দলের সদস্যরা হলেন সামসুল হক খান স্কুল অ্যান্ড কলেজের এস এম এ নাহিয়ান, নটর ডেম কলেজের মো. আশরাফুল ইসলাম ফাহিম, সরকারি আনন্দমোহন কলেজের তাহজিব হোসেন খান, ভিকারুননিসা নূন স্কুল অ্যান্ড কলেজের নুজহাত আহমেদ দিশা, নটর ডেম কলেজের তাহমিদ হামিম চৌধুরী ও ঢাকা রেসিডেনসিয়াল মডেল কলেজের মো. ফোয়াদ আল আলম।

এ ছাড়া উপদল‌নেতা হি‌সে‌বে আছেন সা‌বেক আন্তর্জাতিক গণিত অলিম্পিয়াডের সদস্যক আসিফ-ই-এলাহী, পর্যবেক্ষক হি‌সে‌বে তাহনিক নূর সামীন এবং বাংলাদেশ গণিত অলিম্পিয়াডের সমন্বয়ক বায়েজিদ ভূঁইয়া।

default-image

৮ জুলাই রাতে ঢাকা থেকে রওনা দিয়ে বিমানে ইস্তাম্বুল হয়ে ৯ জুলাই সকালে অসলো এসে পৌঁছায় বাংলা‌দেশ দল। প্রায় ১৫ ঘণ্টার দীর্ঘ যাত্রা শেষে বিমানবন্দর পৌঁছালে আইএমওর আ‌য়োজকেরা অভ্যর্থনা জানায়। ‌বিমানবন্দরের আনুষ্ঠা‌নিকতা শেষে বাসে হোটেলে পৌঁছায় দল। বাংলাদেশ দলকে ‌হো‌টে‌লে স্বাগত জানান বাংলা‌দেশ দ‌লের গাইড ফাহ্‌দ নেওয়াজ। ফাহ্‌দ বাংলা‌দে‌শের ছে‌লে, ঢাকা থে‌কে স্কুল-ক‌লেজ শেষ ক‌রে অস‌লো‌তে এসেছেন। তিনি বর্তমা‌নে অসলো বিশ্ববিদ্যালয়ে তথ্য প্রযুক্তিতে পিএইচডি করেছেন। এর আ‌গ একই বিশ্ব‌বিদ্যালয় থে‌কে অনার্স ও মার্স্টাস ক‌রে‌ছেন। আইএমও চলাকালে ফাহ্‌দ বাংলা‌দেশ দ‌লের প্রয়োজনীয় দেখভাল কর‌বেন। বাংলাদেশের দলনেতা মাহবুব মজুমদার ৬ জুলাই এখানে পৌঁছেছেন।

default-image

ডাচ্‌-বাংলা ব্যাংকের পৃষ্ঠপোষকতায় ও প্রথম আলোর ব্যবস্থাপনায় বাংলাদেশ গণিত অলিম্পিয়াড কমিটি সারা দেশের ৪১ হাজার ৩৫০ জন শিক্ষার্থীর মধ্য থেকে আইএমওর জন্য এই ছয় শিক্ষার্থীকে নির্বাচন করে।

বাংলাদেশ থেকে আরও পড়ুন
মন্তব্য করুন