default-image

কুয়াশাচ্ছন্ন অন্ধকার কেটে এগিয়ে চলছে জাহাজ। নদীর ঢেউ আছড়ে পড়ছে তীরে। পাড়ে শূন্য একটি লোহার চেয়ার। এই একাকীত্বের রূপ ফুটে উঠেছে আলোকচিত্রী আরিফ আব্দুল্লাহ্র ক্যামেরায়। ‘অন্য দ্য রোড’ শিরোনামে প্রদর্শনীতে স্থান পেয়েছে ছবিটি।
গত ৩১ জানুয়ারি থেকে ৫ ফেব্রুয়ারি পর্যন্ত নগরের আঁলিয়স ফ্রঁসেজে ১৮টি আলোকচিত্র নিয়ে অনুষ্ঠিত হয় আরিফ আব্দুল্লাহ্র একক আলোকচিত্র প্রদর্শনী। উদ্বোধন করেন দৈনিক আজাদীর সম্পাদক এম এ মালেক। প্রধান অতিথি ছিলেন আঁলিয়স ফ্রঁসেজের পরিচালক রাফয়েল ইয়েগার। অতিথি ছিলেন আলোকচিত্রী শোয়েব ফারুকী।
এই প্রদর্শনীতে চট্টগ্রামের কর্ণফুলী নদীর তীরের বিভিন্ন ঘাটের সঙ্গে সম্পৃক্ত বিভিন্ন পেশা, গোত্র ও বয়সের মানুষের দৈনন্দিন জীবনকে ফুটিয়ে তুলেছেন আলোকচিত্রী। এখানে ফ্রেমের ছবির চেয়ে তার ভেতরের অন্তর্নিহিত ঘটনাকেই প্রাধান্য দিয়েছেন তিনি। প্রদর্শনীতে সব ছবি সাদাকালো। ছবির নির্দিষ্ট কোনো নাম দেওয়া হয়নি।
আলোকচিত্রে দেখা যায়, দুজন বৃদ্ধ নদীর পাড়ে বসে আছেন, একজন হাই তুলছেন। পাশে মাটির হঁাড়ি থেকে ধোঁয়া বের হচ্ছে। তৈরি হচ্ছে ভাপা পিঠা।
এক বালক সেলুনের সামনে দাঁড়িয়ে আছে। তার প্রতিবিম্ব পড়েছে সেলুনের আয়নায়। মাঝবয়সী এক লোক বাজারের থলে হাতে কয়েকজন সঙ্গীসহ হেঁটে যাচ্ছেন। এই ছবিগুলো হৃদয়ে ঢেলে দিয়েছে বয়সের নির্মম বাস্তবতা আর নদীতীরের মানুষের দিনলিপি। নদীপারের প্রকৃতি ও মানুষের জীবন-সংগ্রামের ছন্দময় গতি নাড়া দিয়েছে দর্শকদের।
এর আগে ২০১২ সালে আলোকচিত্রী আরিফ আব্দুল্লাহ্র ‘দ্য হাঙ্গার’ শিরোনামে প্রথম একক আলোকচিত্র প্রদর্শনী হয়।

বিজ্ঞাপন
বাংলাদেশ থেকে আরও পড়ুন
মন্তব্য করুন