ব্রাহ্মণবাড়িয়ার আখাউড়া উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তার (ইউএনও) হস্তক্ষেপে একটি বাল্যবিবাহ বন্ধ হয়েছে। একই সঙ্গে কনের বাবার কাছ থেকে প্রাপ্তবয়স্ক না হওয়া পর্যন্ত মেয়েকে বিয়ে না দেওয়ার অঙ্গীকার আদায় করা হয়েছে। গতকাল রোববার দুপুরে উপজেলার দক্ষিণ ইউনিয়নের হীরাপুর গ্রামে এ বিয়ে হওয়ার কথা ছিল।
স্থানীয় সূত্রে জানা গেছে, উপজেলার হীরাপুর গ্রামের অষ্টম শ্রেণির এক স্কুলছাত্রীর সঙ্গে পৌর এলাকার তারাগন গ্রামের এক যুবকের বিয়ে ঠিক হয়। গতকাল দুপুরে বিষয়টি জানতে পেরে বিয়েবাড়িতে পুলিশ পাঠান ইউএনও। বিয়েবাড়িতে পুলিশ আসার খবর জানতে পেরে সেখানে বরপক্ষের লোকজন আর যাননি। পরে পুলিশ বিয়ে বন্ধের নির্দেশ দেয়। পাশাপাশি প্রাপ্তবয়স্ক না হওয়া পর্যন্ত মেয়েকে বিয়ে দেবেন না বলে স্কুলছাত্রীর বাবার কাছ থেকে মুচলেকা আদায় করা হয়।
ইউএনও মোহাম্মদ শামছুজ্জামান বাল্যবিবাহ বন্ধের সত্যতা নিশ্চিত করেছেন।

বিজ্ঞাপন
মন্তব্য করুন