default-image

যুক্তরাষ্ট্রভিত্তিক বেসরকারি সংস্থা উইমেন ডেলিভারের ‘তরুণ নেতাদের’ এক তালিকায় স্থান পেয়েছে ছয় বাংলাদেশি। এই ছয় তরুণ হলেন তানজিলা মজুমদার, সোহানুর রহমান, নওশীন চৌধুরী, মোহসীনা আক্তার, নাফিসা তাসনিম ও সাদমান ফয়সাল।

উইমেন ডেলিভারের জ্যেষ্ঠ যোগাযোগ সহযোগী সুমিত গালহোত্রা প্রথম আলোকে এই ছয় তরুণের পরিচয় নিশ্চিত করেছেন। তিনি জানিয়েছেন, এই ছয়জন সংস্থাটির ‘উইমেন ডেলিভার ইয়াং লিডারস’ কর্মসূচিতে বাংলাদেশ থেকে স্থান পেয়েছেন।

লিঙ্গসমতা, নারী স্বাস্থ্য ও অধিকার নিয়ে কাজ করা বৈশ্বিক সংস্থা উইমেন ডেলিভার। তাঁদের কাজকে সুসংহত করতেই বিশ্বের বিভিন্ন দেশ থেকে তরুণ নেতা নির্বাচন করা হয়। গতকাল বুধবার ২০২০ সালের তরুণদের তালিকাটি প্রকাশ করা হয়েছে। এ বিষয়ে প্রথম আলোকে পাঠানো সংবাদ বিজ্ঞপ্তিতে সংস্থাটি জানিয়েছে, এবারের তালিকায় বিশ্বের বিভিন্ন দেশ থেকে ৫ হাজার ৬০০ আবেদনকারীর মধ্য থেকে ৯৬টি দেশের ৩০০ জনকে নির্বাচন করা হয়েছেন।

এই তরুণ নেতাদের কাজ ও উদ্যোগ সম্পর্কে বিস্তারিত উইমেন ডেলিভারের ওয়েবসাইটে তুলে দেওয়া হয়েছে। যাঁদের মধ্যে কেউ যুক্ত আছেন শিক্ষা ও মাতৃত্বকালীন স্বাস্থ্যসেবায়, কেউবা সোচ্চার নারীর প্রতি সহিংসতা রোধে, কেউ যুক্ত আছেন জলবায়ু ও পরিবেশ রক্ষায়, আবার কারও ভাবনা দরিদ্র মানুষের ক্ষমতায়ন নিয়ে।

বাংলাদেশি ছয়জনের মধ্যে নওশীন চৌধুরী, তানজিলা মজুমদার ও সাদমান ফয়সাল বেসরকারি সংস্থা ব্র্যাকের কর্মী। নওশীন সংস্থাটির নির্বাহী ব্যবস্থাপক হিসেবে নগর কর্মসূচির সঙ্গে যুক্ত। দায়িত্ব পালন করছেন জুনিয়র চেম্বার ইন্টারন্যাশনালের (জেসিআই) ঢাকা পশ্চিম অংশের সহসভাপতি হিসেবেও। তানজিলা স্বাস্থ্য কর্মসূচির একজন জ্যেষ্ঠ ব্যবস্থাপক হিসেবে নেতৃত্ব দিচ্ছেন তাঁর তরুণ দলকে, যুক্ত আছেন আরও কিছু স্বেচ্ছাসেবী কাজের সঙ্গে। সাদমান সোশ্যাল ইনক্লুসিভ অফিসার হিসেবে লিঙ্গসমতা নিয়ে পেশাগত দায়িত্ব পালন ছাড়াও ফ্রেশ ট্যাগ নামে অলাভজনক উদ্যোগের প্রতিষ্ঠাতা।

নাফিসা তাসনিম ঢাকার আনোয়ার খান মর্ডান মেডিকেল কলেজ হাসপাতালের স্বাস্থ্য কর্মকর্তা হিসেবে কর্মরত। পেশাগত দায়িত্ব পালনের পাশাপাশি নড়াইল জেলায় স্বেচ্ছাসেবক হিসেবে স্বাস্থ্যসেবা দেন, বিনে পয়সায় সেবা দেন সামাজিক যোগাযোগমাধ্যম ফেসবুকেও।

সোহানুর রহমান জলবায়ু পরিবর্তনের ফলে ক্ষতিগ্রস্ত মানুষের অধিকার নিয়ে কাজ করা সংগঠন ইয়ুথ নেটের সহপ্রতিষ্ঠাতা ও সমন্বয়ক। আর মোহসীনা আক্তার কর্মসূচি সমন্বয়ক হিসেবে কাজ করছেন কমিউনিটি ডেভেলপমেন্ট ফর পিস নামে একটি বেসরকারি প্রতিষ্ঠানে।

বিজ্ঞপ্তিতে জানানো হয়েছে, নির্বাচিত তরুণদের কাজ ও উদ্যোগকে সম্প্রসারিত করতে নানা ধরনের প্রশিক্ষণ, তহবিল প্রদানসহ বিভিন্ন সুযোগ করে দেবে সংস্থাটি। সেই সঙ্গে নারী ও তরুণীদের সমতা এবং অধিকারবিষয়ক বিশ্বের অন্যতম বৃহৎ সম্মেলন ‘উইমেন ডেলিভার কনফারেন্স ২০২২’–এ অংশগ্রহণের সুযোগ পাবেন নির্বাচিত তরুণেরা।

বিজ্ঞাপন
মন্তব্য পড়ুন 0