default-image

প্রতিষ্ঠিত কিংবা জনপ্রিয় কোনো শিল্পী নয়, দীপ্ত টিভির ১৫০ জন কর্মকর্তা আর কর্মচারী মিলে গেয়েছেন জাতীয় সংগীত ‘আমার সোনার বাংলা আমি তোমায় ভালোবাসি’। গতকাল বুধবার সন্ধ্যায় এই মিউজিক ভিডিওটি দেখেছেন র্যাডিসন ব্লু ওয়াটার গার্ডেনের উৎসব হলে দীপ্ত টিভির উদ্বোধনী অনুষ্ঠানে আসা অতিথি আর সারা দেশের দর্শকেরা। আয়োজনটি তখন সরাসরি সম্প্রচার করেছে দীপ্ত টিভি। এরপর সাত ফুট বাই তিন ফুট আয়তনের কেক কেটে দেশের ২৬তম টিভি চ্যানেল দীপ্ত টিভির উদ্বোধন করেন তথ্যমন্ত্রী হাসানুল হক ইনু। এ সময় তাঁর সঙ্গে ছিল দীপ্ত টিভির স্লোগান ‘আলোয় ভুবন ভরা’। দর্শকদের শতভাগ বিনোদন দেওয়ার জন্য একটু ভিন্ন পথে হেঁটেছেন দীপ্ত টিভির কর্মকর্তারা। উদ্বোধনী অনুষ্ঠানে এই টিভি চ্যানেলের বিভিন্ন অনুষ্ঠানের উল্লেখযোগ্য অংশ নিয়ে তৈরি ভিডিওটি দেখে তা-ই মনে হয়েছে। দারুণ জনপ্রিয় এবং পরিচিত কোনো তারকার উপস্থিতি নেই দীপ্ত টিভির নাটকগুলোতে। প্রায় সবাই নতুন শিল্পী। কর্তৃপক্ষ আগেই জানিয়েছে, অনুষ্ঠান তৈরির আগে পাঠকদের মুখোমুখি হয়েছে তারা। ভারতীয় টিভি চ্যানেলের ব্যাপারে এ দেশের দর্শকদের আগ্রহের কারণ খোঁজার চেষ্টা করেছে। এমনি ভাবনা নিয়ে সারা দেশে পরিচালিত জরিপ থেকে পাওয়া তথ্যের ওপর ভিত্তি করে অনুষ্ঠানের পরিকল্পনা করা হয়েছে। নাটক থেকে শুরু করে সব অনুষ্ঠানেই থাকছে এই জরিপের ফলাফলের ছোঁয়া।
শুরু থেকে তিনটি মেগা সিরিয়াল সপ্তাহে ছয় দিন প্রচার করবে দীপ্ত টিভি। আশাপূর্ণা দেবীর উপন্যাস বালুচরী থেকে তৈরি হচ্ছে অপরাজিতা। জীবনযুদ্ধে হার না মেনে একজন নারী সব বাধাকে জয় করে। সেই গল্প নিয়ে অপরাজিতা। একটি যৌথ পরিবারের সুখ-দুঃখ, হাসি-কান্না আর পাওয়া না-পাওয়ার ভিড়ে ভালোবেসে হারিয়ে ফেলা একজনের স্মৃতির খোঁজ নিয়ে খুঁজে ফিরি তাকে। গ্রামের এক সাধারণ মেয়ের অসাধারণ হয়ে ওঠার গল্প পালকী। আরও থাকছে তুরস্কের জনপ্রিয় সিরিজ সুলতান সুলেমান। অটোমান সাম্রাজ্যের রোমাঞ্চকর সময় আর ধ্রুপদি প্রেমের আখ্যান নিয়ে তৈরি সিরিজটি দেখানো হবে সপ্তাহে ছয় দিন। ছোটদের জন্য থাকছে বাংলায় ডাব করা কার্টুন সিরিজ ‘বেনটেন’ আর ‘দ্য পাওয়ার পাফ গার্লস’। প্রতিদিন সকালে থাকবে ‘সাত সকালের আড্ডা’। থাকছে গানের অনুষ্ঠানসহ নানা কিছু। থাকবে সংবাদ।
অনুষ্ঠানে স্বাগত বক্তব্য দেন দীপ্ত টিভির প্রধান নির্বাহী কর্মকর্তা কাজী উরফী আহমদ। আরও বক্তব্য দিয়েছেন পরিচালক কাজী জাহিন হাসান। প্রধান অতিথি তথ্যমন্ত্রী হাসানুল হক ইনু বলেন, ‘আগামীতে দীপ্ত টিভি মানুষের মনের আকাশে দীপ্তি ছড়াতে পারবে, এমন আশাই করছি।’
অনুষ্ঠানে উপস্থিত ছিলেন দীপ্ত টেলিভিশনের ব্যবস্থাপনা পরিচালক কাজী জাহেদুল হাসান, অর্থনীতিবিদ কাজী খলিকুজ্জমান আহমদ, অধ্যাপক পারভীন হাসান, কাজী জিশান হাসান, শামসুল আলম (বীর উত্তম) ও দেশের বিভিন্ন অঙ্গনের বিশিষ্ট ব্যক্তিত্বরা।

বিজ্ঞাপন
মন্তব্য পড়ুন 0