default-image

কিশোরগঞ্জের ভৈরব হাইওয়ে থানার এক পুলিশ সদস্য করোনাভাইরাসের সংক্রমণে মারা গেছেন। গতকাল শুক্রবার রাতে রাজারবাগ পুলিশ লাইনস হাসপাতালে চিকিৎসাধীন অবস্থায় তাঁর মৃত্যু হয়। তাঁর নাম রফিকুল ইসলাম (৫১)। তিনি ভৈরব হাইওয়ে থানায় কনস্টেবল পদে কর্মরত ছিলেন। এ নিয়ে ভৈরবে ১৩ জন কোভিড–১৯ রোগীর মৃত্যু হয়েছে।

স্বাস্থ্য বিভাগ ও হাইওয়ে থানা সূত্র জানায়, রফিকুল ইসলামের বাড়ি ব্রাহ্মণবাড়িয়ায়। এক বছর আগে তিনি ভৈরব হাইওয়ে থানায় যোগ দেন। থানার গাড়িচালক হিসেবে দায়িত্ব পালন করতেন। ১৪ জুন থেকে তিনি জ্বর ও শ্বাসকষ্টে ভুগছিলেন। ১৮ জুন পরীক্ষার জন্য নমুনা দেন। ২৩ জুন জানতে পারেন তিনি করোনা পজেটিভ।


ভৈরবের স্বাস্থ্য ও পরিবার পরিকল্পনা কর্মকর্তা বুলবুল আহমেদ বলেন, রফিকুল ডায়াবেটিস, হৃদরোগ ও শ্বাসকষ্টের রোগী ছিলেন। এ কারণে শুরু থেকেই জটিলতা দেখা দেয় এবং দিন দিন পরিস্থিতির অবনতি হয়।

ভৈরব হাইওয়ে থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) মো. মামুন রহমান বলেন, স্বাস্থ্যবিধি অনুসরণ করে রফিকুলের গ্রামের বাড়িতে দাফন সম্পন্ন হয়েছে।


এদিকে ভৈরবে ১৭ জনের নমুনা পরীক্ষা করে আরও তিনজনের করোনাভাইরাসের সংক্রমণ শনাক্ত হয়েছে। এতে উপজেলায় মোট রোগীর সংখ্যা দাঁড়াল ৫৩২ জনে। এখন পর্যন্ত সুস্থ হয়েছেন ৪৬৫ জন।

বিজ্ঞাপন
মন্তব্য পড়ুন 0