বিজ্ঞাপন
বিজ্ঞাপন

বিপিসির চেয়ারম্যানের সঙ্গে উপস্থিত ছিলেন ব্যবস্থাপনা পরিচালক (অপারেশন) মেহদী হাসান, পদ্মা পেট্রোলিয়ামের ব্যবস্থাপনা পরিচালক মো. মাসুদুর রহমান, মেঘনা পেট্রোলিয়ামের ব্যবস্থাপনা পরিচালক মীর সাইফুল্লাহ আল খালেদ, যমুনা পেট্রোলিয়ামের ব্যবস্থাপনা পরিচালক গিয়াস উদ্দিন আনসারী, এলপি গ্যাস প্ল্যান্টের ব্যবস্থাপনা পরিচালক আবু হানিফ, জিএম (হিসাব) নেয়ামত উল্লাহ, গোলাপগঞ্জ উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা (ইউএনও) মোহাম্মদ গোলাম কবির, গোলাপগঞ্জ পৌরসভার মেয়র আমিনুল ইসলাম, গোলাপগঞ্জ এলপি গ্যাস প্ল্যান্টের ডিজিএম আবদুল মোবিন খান প্রমুখ।

কৈলাশটিলা প্ল্যান্ট থেকে গ্রাহক পর্যায়ে গ্যাসভর্তি সিলিন্ডার কম মূল্যে বিক্রি করা হতো। গত বছরের সেপ্টেম্বর থেকে প্ল্যান্ট বন্ধ করে দেওয়া হয়। এতে দ্বিগুণ দামে বাইরে থেকে কিনে রান্নার কাজে ব্যবহার করতে হচ্ছে গ্রাহকদের। ফলে স্বল্প আয়ের লোকজন পড়েছেন ভোগান্তিতে। এর প্রতিবাদে ‘গোলাপগঞ্জ প্রাকৃতিক সম্পদ রক্ষা কমিটি’ নামের একটি কমিটি গঠন করে প্ল্যান্ট চালুর ব্যাপারে আন্দোলন শুরু করেন স্থানীয় লোকজন। প্ল্যান্টটি চালুর ব্যাপারে কমিটির পক্ষ থেকে প্রধানমন্ত্রীর হস্তক্ষেপ কামনা করে স্মারকলিপিও দেওয়া হয়েছিল।

বাংলাদেশ থেকে আরও পড়ুন
মন্তব্য করুন
বিজ্ঞাপন
বিজ্ঞাপন