default-image

মন্ত্রণালয় সংসদীয় কমিটিকে গুরুত্ব দেয় না—এমন অভিযোগ তুলে ক্ষোভ প্রকাশ করেছেন রেলপথ মন্ত্রণালয়–সম্পর্কিত সংসদীয় কমিটির সদস্যরা। আজ রোববার জাতীয় সংসদ ভবনে অনুষ্ঠিত কমিটির সভায় এ নিয়ে উত্তপ্ত বাক্যবিনিময় হয় বলে বৈঠক সূত্র জানিয়েছে।

সূত্র জানায়, গতকালের বৈঠকের প্রথম আলোচ্য সূচি ছিল আগের বৈঠকের কার্যবিবরণী নিশ্চিতকরণ। কার্যবিবরণীর একটি অংশে ছিল ‘বঙ্গবন্ধুর জন্মশতবার্ষিকী উপলক্ষে রেল বাতায়ন প্রকাশের ক্ষেত্রে কর্মকর্তাদের একাধিক ছবির মধ্যে বিশেষ করে মহাপরিচালকেরই গ্রুপ ছবিসহ মোট ১০টি ছবি রয়েছে। এ ছাড়া অনেকের বাণী থাকলেও স্থায়ী কমিটির কোনো সদস্যের ছবি বা বাণী না থাকা দুঃখজনক। স্থায়ী কমিটি সাংবিধানিক দায়িত্ব পালন করে থাকে। স্থায়ী কমিটিকে অবজ্ঞা, অবহেলা করা পরোক্ষভাবে সংবিধান ও সংসদকে অবজ্ঞা করার শামিল।’

কার্যবিবরণীর এ অংশ নিয়ে মন্ত্রণালয়ের পক্ষ থেকে আপত্তি জানানো হয়। একজন কর্মকর্তা বলেন, এটা এভাবে, লিখিতভাবে থাকাটা মন্ত্রণালয়ের জন্য বিব্রতকর। তখন কমিটির একজন সদস্য ক্ষোভ প্রকাশ করে বলেন, যা বলা হয়েছে, সেটি ঠিকই আছে।

বিজ্ঞাপন

পর্যায়ক্রমে একাধিক সদস্য ক্ষোভ প্রকাশ করেন। তাঁরা অভিযোগ করেন, কমিটির সুপারিশ আমলে নেওয়া হয় না। রেলস্টেশনে স্ক্যানার বসানোর সুপারিশ করা হলেও তা রাখা হয়নি। টিকিট কাউন্টারের সামনে বঙ্গবন্ধুর ছবি টাঙানোর সুপারিশও মানা হয়নি। মন্ত্রণালয়ের বিভিন্ন অনুষ্ঠানে কমিটির সদস্যদের আমন্ত্রণ জানানো হয় না। জানানো হলেও ভালোভাবে বসার ব্যবস্থা রাখা হয় না।

সূত্র জানায়, একপর্যায়ে রেলপথমন্ত্রী নূরুল ইসলাম বলেন, কমিটির সভাপতি শুধু চট্টগ্রামকেই বেশি গুরুত্ব দেন। এটা থেকে বের হয়ে আসতে হবে। প্রসঙ্গত, এই কমিটির সভাপতি চট্টগ্রাম-৬ আসনের সাংসদ এ বি এম ফজলে করিম চৌধুরী।

বৈঠক শেষে সংসদ সচিবালয়ের এক সংবাদ বিজ্ঞপ্তিতে বলা হয়, বৈঠকে জ্বালানি তেল বহনকারী ট্রেনের দুর্ঘটনার কারণ এবং দুর্ঘটনা প্রতিরোধে নেওয়া পদক্ষেপ নিয়ে আলোচনা হয়। কমিটি জ্বালানি তেল বহনকারী ট্রেনের দুর্ঘটনার কারণ চিহ্নিত করে প্রতিরোধে কার্যকর পদক্ষেপ গ্রহণ করার জন্য মন্ত্রণালয়কে সুপারিশ করে। বৈঠকে বাংলাদেশ রেলওয়েতে চলমান প্রকল্পের মেয়াদ বৃদ্ধি না করে নির্ধারিত সময়ের মধ্যে সমাপ্ত করার সুপারিশ করা হয়। এ ছাড়া কমিটি সব রেলস্টেশনে টিকিট কাউন্টারের সামনে জাতির জনক বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের ছবি টাঙানোর সুপারিশ করে।

কমিটির সভাপতি এ বি এম ফজলে করিম চৌধুরীর সভাপতিত্বে কমিটির সদস্য ও রেলপথমন্ত্রী নূরুল ইসলাম, শফিকুল ইসলাম, শফিকুল আজম খান, সাইফুজ্জামান, নাছিমুল আলম চৌধুরী, গাজী মোহাম্মদ শাহ নওয়াজ ও নাদিরা ইয়াসমিন বৈঠকে অংশ নেন।

বাংলাদেশ থেকে আরও পড়ুন
মন্তব্য করুন