গোপালগঞ্জে করোনায় সংক্রমিত বৃদ্ধের মৃত্যু

বিজ্ঞাপন
default-image

গোপালগঞ্জের কাশিয়ানীতে করোনাভাইরাসে সংক্রমিত মোহাম্মদ হোসেন খোকা মোল্লা (৭৫) নামের এক বৃদ্ধের মৃত্যু হয়েছে। গতকাল মঙ্গলবার সন্ধ্যায় নিজ বাড়িতে আইসোলেশনে থাকা অবস্থায় তিনি মারা যান।

মারা যাওয়া মোহাম্মদ হোসেন কাশিয়ানী সদর ইউনিয়নের পোনা গ্রামের মৃত লোকমান মোল্লার ছেলে। তাঁকে নিয়ে জেলায় করোনাভাইরাসে (কোভিড-১৯) চারজনের মৃত্যু হলো। তবে কাশিয়ানী উপজেলায় মৃত্যুর ঘটনা এটাই প্রথম। 


উপজেলা স্বাস্থ্য ও পরিবার পরিকল্পনা কর্মকর্তা মো. কাইয়ূম তালুকদার বলেন, কয়েক দিন ধরে মোহাম্মদ হোসেন জ্বর ও শ্বাসকষ্টে ভুগছিলেন। এ অবস্থায় পরিবারের লোকজন হাসপাতালে যোগাযোগ করেন। স্বাস্থ্য বিভাগের লোকজন বাড়িতে গিয়ে ৫ জুন নমুনা সংগ্রহ করেন। পরীক্ষার জন্য নমুনা ফরিদপুরে পাঠানো হয়েছিল। ৭ জুন পরীক্ষার প্রতিবেদন উপজেলায় পৌঁছায়। এতে দেখা যায়, ওই ব্যক্তি করোনা ‘পজিটিভ’।

করোনায় সংক্রমিত হিসেবে শনাক্ত হওয়ার পর থেকে বাড়িতে আইসোলেশনে থেকেই চিকিৎসা নিচ্ছিলেন মোহাম্মদ হোসেন। কিন্তু গতকাল তাঁর শারীরিক অবস্থার অবনতি ঘটে। হাসপাতালে নেওয়ার আগেই সন্ধ্যা সাড়ে সাতটার দিকে তিনি নিজ বাড়িতে মারা যান। পরে স্বাস্থ্য বিভাগের লোকজন উপজেলা প্রশাসন, পুলিশ ও ইসলামিক ফাউন্ডেশনের সহায়তায় সতর্কতার সঙ্গে লাশ দাফন করেছেন।

এর আগে গোপালগঞ্জ সদর উপজেলার এক স্বাস্থ্যকর্মীসহ দুজন হাসপাতালের আইসোলেশন ওয়ার্ডে চিকিৎসাধীন অবস্থায় মারা যান। এ ছাড়া মুকসুদপুরের এক ব্যক্তি নিজ বাড়িতে আইসোলেশনে চিকিৎসাধীন অবস্থায় মারা গেছেন।

বিজ্ঞাপন
মন্তব্য পড়ুন 0
বিজ্ঞাপন