ঘুরতে এসে স্বাস্থ্যবিধি না মানায় ১২০ জনকে জরিমানা

বিজ্ঞাপন
default-image

ব্রাহ্মণবাড়িয়ার নবীনগর উপজেলার তিতাস নদসংলগ্ন রসুলপুর গ্রামে ঘুরতে এসে স্বাস্থ্যবিধি না মানায় ১২০ জনকে জরিমানা করেছেন ভ্রাম্যমাণ আদালত। আজ বুধবার অভিযান চালিয়ে নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেট ও নবীনগর উপজেলার সহকারী কমিশনার ইকবাল হাসান তাঁদের জরিমানা করেন।

ভ্রাম্যমাণ আদালতসংশ্লিষ্ট সূত্র জানায়, ঈদ উপলক্ষে রসুলপুর গ্রামে বিনোদনপ্রেমীরা ঘুরতে আসেন। করোনার সংক্রমণ রোধে সেখানে আসা দর্শনার্থীদের অনেককে মাস্ক ব্যবহার, সামাজিক দূরত্ব ও স্বাস্থ্যবিধি মানতে দেখা যায়নি। বেলা তিনটার দিকে অভিযান চালিয়ে ১২০ জনকে জরিমানা করা হয়েছে। জরিমানার ৩৬ হাজার ৪০০ টাকা আদায় ও ৮টি মামলা করা হয়।

নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেট ইকবাল হাসান প্রথম আলোকে জানান, বেশির ভাগ মানুষ নৌকায় করে এখানে ঘুরতে আসেন। তবে আজকে মানুষের জমায়েত অনেক কম। যাঁরা মাস্ক ব্যবহার করছেন না, সামাজিক দূরত্ব বজায় রাখছেন না, তাঁদের সচেতন করার জন্য ৫০ টাকা করে জরিমানা করা হচ্ছে। যেসব নৌকায় দর্শনার্থীদের সংখ্যা বেশি, তাঁদের তীরে ভিড়তে না দিয়ে তাড়িয়ে দেওয়া হচ্ছে।

আজ প্রথম আলোয় ‘মানুষের অবাক করা জমায়েত’ শিরোনামে একটি সচিত্র প্রতিবেদন প্রকাশ করা হয়েছে। আর বিকেলে ভ্রাম্যমাণ আদালতের অভিযানটি পরিচালনা করা হয়।

বিজ্ঞাপন
মন্তব্য পড়ুন 0
বিজ্ঞাপন