চিকিৎসক দেখাতে যাওয়ার পথে বাবা-ছেলেসহ নিহত ৩

বিজ্ঞাপন
default-image

চিকিৎসক দেখাতে যাওয়ার পথে বাস ও সিএনজিচালিত অটোরিকশার সংঘর্ষে বাবা-ছেলেসহ তিনজন মারা গেছেন। তিনজনই ওই অটোরিকশার যাত্রী ছিলেন। মঙ্গলবার সন্ধ্যায় রাজধানীর শ্যামপুর থানার পোস্তগোলা ব্রিজের ওপর এই দুর্ঘটনা ঘটে। শ্যামপুর থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) মিজানুর রহমান প্রথম আলোকে এই তথ্য নিশ্চিত করেছেন।

নিহত ব্যক্তিরা হলেন বাচ্চু মিয়া (৬০), তাঁর ছেলে জোবায়েদ (২৮) এবং সৈয়দ আহমেদ (৩০)। নিহত বাবা-ছেলের বাড়ি কেরানীগঞ্জের ইকুরিয়া মুসলিম নগর এলাকায়। নিহত সৈয়দ আহমেদ দক্ষিণ কেরানীগঞ্জের কদমতলায় থাকতেন। গ্রামের বাড়ি শরীয়তপুরের ডামুড্যা এলাকায়। তাঁর বাবার নাম শেলু মিয়া।

পরিবার ও পুলিশ সূত্রে জানা যায়, ছেলেকে চিকিৎসক দেখানোর জন্য পোস্তগোলার একটি হাসপাতালে যাওয়ার পথে ছালছাবিল পরিবহনের একটি বাসের সঙ্গে সিএনজিচালিত অটোরিকশার সংঘর্ষ হয়। এতে ঘটনাস্থলেই বাবা-ছেলেসহ তিনজন মারা যান। পরে তাঁদের লাশ ঢাকা মেডিকেল কলেজ (ঢামেক) হাসপাতালে পাঠানো হয়।

নিহত বাচ্চু মিয়ার ভাই লিটন মিয়া প্রথম আলোকে বলেন, ছেলেকে ডাক্তার দেখানোর জন্য ইকুরিয়া থেকে পোস্তগোলার একটি হাসপাতালে যাওয়ার পথে দুর্ঘটনা ঘটে। খবর পেয়ে ঢামেকে গিয়ে তিনি তাঁর ভাই ও ভাতিজার লাশ শনাক্ত করেছেন। এ ছাড়া নিহত সৈয়দ আহমেদের লাশ শনাক্ত করেছেন তাঁর ভাই মো. হুমায়ুন।

এ দিকে মঙ্গলবার বিকেলে রাজধানীর খিলগাঁওয়ের কমিউনিটি সেন্টারের সামনে মোটরসাইকেলর ধাক্কায় আব্দুর রাজ্জাক (৬০) নামে এক বৃদ্ধ নিহত হয়েছেন। তাঁর বাড়ি খিলগাঁওয়ে। এই ঘটনায় মোটরসাইকেল চালককে আটক করেছে পুলিশ।

বিজ্ঞাপন
মন্তব্য পড়ুন 0
বিজ্ঞাপন