চুয়াডাঙ্গায় ট্রেনে কাটা পড়ে নারীর মৃত্যু

বিজ্ঞাপন
default-image

চুয়াডাঙ্গার জীবননগরে ট্রেনে কাটা পড়ে সফুরা খাতুন (৫০) নামের এক নারী নিহত হয়েছেন। আজ মঙ্গলবার সকাল নয়টার দিকে উপজেলার উথলী ঘোড়ামারা রেলগেট এলাকায় এই দুর্ঘটনা ঘটে।

নিহত সফুরা উথলী গ্রামের মাঝের পাড়ার ইদ্রিস আলীর স্ত্রী। খুলনা থেকে চিলাহাটিগামী রূপসা আন্তনগর এক্সপ্রেস ট্রেনে কাটা পড়েন তিনি।

প্রত্যক্ষদর্শী মো. সালাউদ্দিন বলেন, গৃহবধূ সফুরা খাতুন একদল ভেড়া চরানোর জন্য বাড়ি থেকে মাঠে নিয়ে যাচ্ছিলেন। পথে রেলগেট পার হওয়ার সময় ট্রেন চলে আসে। তখন ভেড়াগুলো এদিক-ওদিক ছোটাছুটি করতে থাকে। ভেড়াগুলোকে সামলাতে গিয়ে ট্রেনে কাটা পড়েন সফুরা। এতে ঘটনাস্থলেই তিনি মারা যান।

খবর পেয়ে রেলওয়ের পোড়াদহ থানাধীন দর্শনা হল্ট স্টেশন ফাঁড়ি থেকে একদল পুলিশ ঘটনাস্থলে যায়। তারা সুরতহাল প্রতিবেদন তৈরির পর দুপুর ১২টার দিকে লাশটি উদ্ধার করে।

পুলিশর ফাঁড়ির উপপরিদর্শক (এসআই) তবিবুর রহমান বলেন, স্বজনেরা ময়নাতদন্ত ছাড়াই লাশ দাফনের আবেদন করেন। পরে জেলা প্রশাসকের অনুমতি নিয়ে লাশ দাফনের প্রক্রিয়া শুরু করেছেন পরিবারের সদস্যরা।

বিজ্ঞাপন
মন্তব্য পড়ুন 0
বিজ্ঞাপন