সরস্বতী পূজা উপলক্ষে সরকারি ছুটির দিনে গতকাল মঙ্গলবার পটুয়াখালীর গলাচিপা উপজেলার গুয়াবাড়িয়া এবি বালিকা মাধ্যমিক বিদ্যালয়ের ক্লাস চালু রাখা হয়েছে। এ নিয়ে ওই বিদ্যালয়ের হিন্দুধর্মাবলম্বী শিক্ষার্থী এবং অভিভাবকদের মধ্যে অসন্তোষ দেখা দিয়েছে। বিদ্যালয়ের প্রধান
শিক্ষক পূজার ছুটির দিনে ক্লাস চালু রাখার বিষয়টি স্বীকার করেছেন।
বকুলবাড়িয়া ইউনিয়নের গুয়াবাড়িয়া এবি বালিকা মাধ্যমিক বিদ্যালয়ের একাধিক শিক্ষার্থী এবং শিক্ষার্থীদের কয়েকজন অভিভাবক জানান, সরস্বতী পূজা উপলক্ষে সারা দেশের সব শিক্ষাপ্রতিষ্ঠানে মঙ্গলবার (গতকাল) সরকারি ছুটি ঘোষণা করা হয়।
এমনকি বিভিন্ন শিক্ষাপ্রতিষ্ঠানের শিক্ষার্থীরা প্রতিষ্ঠান প্রাঙ্গণে সরস্বতী পূজার আয়োজন করেছে। অথচ পূজার দিনে গুয়াবাড়িয়া এবি
বালিকা মাধ্যমিক বিদ্যালয়ে ছুটি ঘোষণা করা হয়নি। উপরন্তু সরকারি ছুটির দিনে অন্যান্য দিনের মতো ক্লাস চালু রাখা হয়েছে।
জানতে চাইলে গলাচিপা উপজেলা মাধ্যমিক শিক্ষা কর্মকর্তা হুমায়ূন কবির বলেন, ‘সরস্বতী পূজার দিনে সব শিক্ষাপ্রতিষ্ঠানে সরকারি ছুটি রয়েছে। তবে তা সরকারি নির্বাহী আদেশের কোনো ছুটি নয়। এটি ঐচ্ছিক ছুটির পর্যায়েই পড়ে। সে ক্ষেত্রে প্রতিষ্ঠানের পরিচালনা পর্ষদের সিদ্ধান্ত সাপেক্ষে কোনো প্রতিষ্ঠান খোলাও রাখা যেতে পারে।’
পূজার ছুটির দিনে ক্লাস চালু রাখা প্রসঙ্গে বিদ্যালয়ের প্রধান শিক্ষক মো. মোশাররফ হোসেন বলেন, ‘আমাদের বিদ্যালয়ের শিক্ষার্থীরা সরস্বতী পূজা করছে না। তা ছাড়া বিদ্যালয়ে একজন হিন্দু শিক্ষক এবং অল্প কিছু হিন্দু শিক্ষার্থী রয়েছে। তাদের ছুটি দিয়ে দেওয়া হয়েছে। বাকিদের নিয়ে মঙ্গলবার ক্লাস চালু রাখা হয়েছে।’

বিজ্ঞাপন
বাংলাদেশ থেকে আরও পড়ুন
মন্তব্য করুন