default-image

ভূমিমন্ত্রী সাইফুজ্জামান চৌধুরী বলেছেন, আগামী ছয় মাসের মধ্যে দেশের সব জেলায় ভার্চ্যুয়াল রেকর্ড রুম চালু হবে।

ভূমিমন্ত্রী আজ বৃহস্পতিবার ঢাকা জেলা প্রশাসকের কার্যালয়ে ঢাকা কালেক্টরেটের ভার্চ্যুয়াল রেকর্ড রুম উদ্বোধন করার সময় এসব কথা বলেন। এ অনুষ্ঠানে বিশেষ অতিথি ছিলেন ভূমিসচিব মো. মাক্ছুদুর রহমান পাটওয়ারী। ‘হাতের মুঠোয় ভূমিসেবা’ প্রতিপাদ্যকে সামনে এ রেকর্ড রুম করা হচ্ছে।

ভূমিমন্ত্রী আরও বলেন, পরীক্ষামূলকভাবে শুরু হওয়া ঢাকা কালেক্টরেট ভার্চ্যুয়াল রেকর্ড রুম নতুন বছরে ঢাকা জেলার অধিবাসীদের জন্যে ভূমি মন্ত্রণালয়ের উপহার।

ভূমি ব্যবস্থাপনা রিফর্মের মধ্যে দিয়ে যাচ্ছে উল্লেখ করে সাইফুজ্জামান চৌধুরী বলেন, এখন ভূমি মন্ত্রণালয় ও এর আওতাধীন সংস্থায় কাজের গতি অনেক বেড়েছে। দেশের বাণিজ্যিক স্বার্থে মন্ত্রী উপস্থিত ভূমি কর্মকর্তাদের কোম্পানি টু কোম্পানি হস্তান্তর হওয়া জমির নামজারি যত দ্রুত সম্ভব শেষ করার নির্দেশ দেন। তিনি বলেন, ‘নামজারি যেন “ফাস্ট ট্র্যাক” বিবেচনায় সাত দিনের মধ্যে করা যায়, সে ব্যাপারে খুব দ্রুত ব্যবস্থা নেব।’

land.gov.bd অথবা rsk.land.gov.bd ওয়েবসাইটের মাধ্যমে যেকোনো স্থান থেকে আরএস খতিয়ান ও মৌজা ম্যাপ দেখা যাবে। এ ছাড়া ৪৫ টাকার বিনিময়ে মোবাইল কিংবা অনলাইনে ফি দিয়ে, সরাসরি কিংবা ডাকযোগে তিন কার্যদিবসের মধ্যে আরএস খতিয়ান ও মৌজা ম্যাপের সার্টিফায়েড কপি পাওয়া যাবে।

ঢাকা জেলার জেলা প্রশাসক আবু ছালেহ মোহাম্মদ ফেরদৌস খানের সভাপতিত্বে অনুষ্ঠিত উদ্বোধনী অনুষ্ঠানে আরও উপস্থিত ছিলেন ঢাকার অতিরিক্ত বিভাগীয় কমিশনার (রাজস্ব) মো. নুরুন্নবী, ভূমি রেকর্ড ও জরিপ অধিদপ্তরের মহাপরিচালক মো. তসলীমুল ইসলাম প্রমুখ, ঢাকা জেলার পুলিশ সুপার মো. মারুফ হোসেন সরদার প্রমুখ।

বিজ্ঞাপন
মন্তব্য পড়ুন 0