বিজ্ঞাপন
বিজ্ঞাপন

এটিইউ এর পুলিশ সুপার (মিডিয়া অ্যান্ড অ্যাওয়ারনেস) মোহাম্মদ আসলাম খান জানান, ‘ময়মনসিংহ জেলার মুক্তাগাছা থেকে বৃহস্পতিবার আনসারুল্লাহ বাংলা টিমের সদস্য কাওসার আহাম্মেদ ওরফে মিলনকে গ্রেপ্তার করা হয়। কাওসারের দেওয়া তথ্যের ভিত্তিতে হাবিরুরকে গ্রেপ্তার করা হয়েছে। তিনি ধর্মীয় বইয়ের প্রকাশনা আল রিহাব পাবলিকেশনসের মালিক। তার বাড়ি নারায়ণগঞ্জের আড়াই হাজারের মোহনপুর। তিনি ২০১৬ সালে প্রকাশনা সংস্থাটি চালু করেন।’

তিনি কীভাবে জঙ্গিবাদে জড়ালেন জানতে চাইলে আসলাম খান বলেন, আনসারুল্লাহ বাংলাটিমের আধ্যাত্মিক নেতা কারাবন্দী জসীম উদ্দিন রাহমানীর সহযোগী ফিরোজ আল রিহাব কিছু বই প্রকাশের জন্য হাবিবুর রহমানকে দেন। তার প্রকাশনা থেকে বইগুলো প্রকাশ ও বিক্রির ফলে মুফতি জসীম উদ্দিন রাহমানীর মতাদর্শে অনুপ্রাণিত হন। আনসারুল্লাহ বাংলা টিমের সদস্যদের সঙ্গে তার ঘনিষ্ঠ সম্পর্ক গড়ে ওঠে। এরপর তিনি জসীম উদ্দিন রাহমানীর উগ্রবাদী বই ছাড়াও ‘গাজওয়াতুল হিন্দ’, ‘জেগে ওঠো হে উম্মাহ’, ‘সত্যের সন্ধানে হে যুবক’, ‘দাজ্জাল আসছে সতর্ক হও’, ‘গণতন্ত্রের অসারতা ও ধ্বংসলীলা’সহ বিভিন্ন উগ্রপন্থী বই গোপনে প্রকাশ ও বিক্রি করতেন।

তার উগ্রবাদের ধরন সম্পর্কে আসলাম খান বলেন, হাবিরুরের কাজ ছিল উগ্রবাদী বই প্রকাশ ও প্রচার করা। তাঁকে জিজ্ঞাসাবাদের জন্য সাত দিনের রিমান্ড চাওয়া হয়েছে।

বাংলাদেশ থেকে আরও পড়ুন
মন্তব্য করুন
বিজ্ঞাপন
বিজ্ঞাপন