সিলেট-চট্টগ্রাম-সিলেট রেলপথে চলাচলকারী জালালাবাদ এক্সপ্রেস নামে (১৩ নম্বর আপ ও ১৪ নম্বর ডাউন) দুটি ট্রেন আজ শনিবার সাময়িকভাবে বন্ধ ঘোষণা করা হয়েছে। ফলে কাল রোববার থেকে এই পথে ট্রেন দুটির চলাচল করবে না।

ব্রাহ্মণবাড়িয়ার আখাউড়া রেলওয়ে জংশন সংশ্লিষ্টরা জানান, লোকোমোটিভ (ইঞ্জিন) সংকটের কারণে ট্রেন দুটির চলাচল সাময়িকভাবে বন্ধ রাখা হয়েছে। তবে ট্রেন চলাচল বন্ধের এই সিদ্ধান্ত আগে যাত্রীদের জানানো হয়নি। এতে কাল থেকে ওই পথের যাত্রীদের দুর্ভোগে পড়ার আশঙ্কা রয়েছে।

খোঁজ নিয়ে জানা গেছে, ১৩ নম্বর আপ জালালাবাদ এক্সপ্রেস ট্রেনটি প্রতিদিন রাত আটটা ১৫ মিনিটে চট্টগ্রাম থেকে ছেড়ে পরদিন বেলা সোয়া ১২টায় সিলেট পৌঁছাত। ১৪ নম্বর ডাউন জালালাবাদ এক্সপ্রেস ট্রেনটি প্রতিদিন রাত ১০টা ১০ মিনিটে সিলেট থেকে ছেড়ে পরদিন বেলা ১২টায় চট্টগ্রামে পৌঁছাত। এই দুটি ট্রেন ব্রাহ্মণবাড়িয়ার আখাউড়াসহ বেশ কিছু ‘বড়-ছোট’ স্টেশনে যাত্রাবিরতি দিত।

আখাউড়া রেলওয়ে জংশনের ভারপ্রাপ্ত স্টেশন মাস্টার জসিম উদ্দিন জানান, ইঞ্জিন সংকটের কারণে ট্রেন দুটি চলাচল বন্ধের সিদ্ধান্ত হয়। এই দুটি ট্রেন আজ শনিবার রাতে চলাচল করলেও কাল ফিরতি পথে আসবে না।

আখাউড়া রেলওয়ে জংশনের লোকোশেড ইনচার্জ দেলোয়ার হোসেন জানান, মালবাহী ট্রেনের জন্য পর্যাপ্ত ইঞ্জিন নেই। তাই জালালাবাদ এক্সপ্রেস ট্রেনের ইঞ্জিন খুলে মালবাহী ট্রেনে লাগানো হবে। তবে এই সংকট কাটিয়ে কবে, কখন ট্রেন দুটি চালু করা হবে তা স্পষ্ট করে বলতে পারেনি তিনি।

বিজ্ঞাপন
মন্তব্য করুন