বিজ্ঞাপন
বিজ্ঞাপন

অভিযানের সময় দুদক সরেজমিন জীবন বীমা করপোরেশনের কার্যালয় পরিদর্শন করে নিয়োগ পরীক্ষার প্রশ্ন, উত্তরপত্রসহ বেশ কিছু নথি সংগ্রহ করে। এ প্রসঙ্গে প্রতিষ্ঠানটির ব্যবস্থাপনা পরিচালক (এমডি), পরিচালকসহ (প্রশাসন) সংশ্লিষ্ট কর্মকর্তাদের বক্তব্য রেকর্ড করা হয়। সত্যতা উদ্‌ঘাটনের জন্য এ–সংক্রান্ত আরও তথ্য প্রমাণ সংগ্রহ ও রেকর্ডপত্র সংগ্রহ করে বিস্তারিত পর্যালোচনা করে কার্যকর ব্যবস্থা গ্রহণের জন্য কমিশন বরাবর পূর্ণাঙ্গ প্রতিবেদন দাখিল করবে দুদক টিম।

কুষ্টিয়া ইসলামিয়া কলেজের অধ্যক্ষের বিরুদ্ধে নিয়োগ–বাণিজ্য এবং ভুয়া বিল-ভাউচারের মাধ্যমে কলেজ ফান্ডের অর্থ আত্মসাতের অভিযোগের পরিপ্রেক্ষিতে সকেজা-কুষ্টিয়ার উপপরিচালক মো. জাকারিয়ার নেতৃত্বে আরেকটি অভিযান পরিচালিত হয়। দুদক টিম সরেজমিন ওই কলেজ পরিদর্শন করে অভিযোগ–সংশ্লিষ্ট বিষয়ে তথ্য প্রমাণ সংগ্রহ করে। কিছু অভিযোগের বিষয়ে সুপ্রিম কোর্টে রিট চলমান, যা বর্তমানে আদালতের এখতিয়ারভুক্ত। কলেজের দোকান বরাদ্দ ও নতুন ভবন নির্মাণে যথাযথভাবে নীতিমালা অনুসরণ করা হয়েছে কি না, তা যাচাইয়ের জন্য সংশ্লিষ্ট তথ্য প্রমাণ সংগ্রহ করা হয়েছে, যা বিশ্লেষণপূর্বক প্রতিবেদন দাখিল করবে দুদক টিম।

এ ছাড়া হাসপাতাল কর্তৃপক্ষের বিরুদ্ধে দালালদের সঙ্গে যোগসাজশে বহির্বিভাগের টিকিট বিক্রয়ে অনিয়ম; এলজিইডি কর্তৃপক্ষের বিরুদ্ধে লক্ষ্মীছড়ি থেকে সিন্দুকছড়ি পর্যন্ত সড়ক নির্মাণে নিম্নমানের নির্মাণসামগ্রী ব্যবহার; জিয়াউর রহমান, ফোরম্যান, এলজিইডি, বরগুনার বিরুদ্ধে ঠিকাদারদের কাজের বিল ছাড়করণে ঘুষ নেওয়া; উপসহকারী প্রকৌশলী, এলজিইডি, ব্রাহ্মণবাড়িয়ার বিরুদ্ধে কর্মস্থলে মাদক সেবন; হাসপাতাল কর্তৃপক্ষের বিরুদ্ধে হাসপাতালের দুই একর জায়গা অবৈধভাবে দখল করে বিভিন্ন দোকানপাট নির্মাণ করে ব্যবসা করা; ভূমি উপসহকারী কর্মকর্তার বিরুদ্ধে গ্রাহকের জমির খাজনা আদায়ে হয়রানি; ঠিকাদারি প্রতিষ্ঠানের বিরুদ্ধে কর্তৃপক্ষের অনুমতি ছাড়াই সরকারি রাস্তায় রিং কালভার্ট তৈরি; এলজিইডি কর্তৃপক্ষের বিরুদ্ধে পুরাতন ফেরিঘাট-মহিষেরচর ও বাহেরচর কাতলা গ্রাম পর্যন্ত কোটি টাকার রাস্তা নির্মাণে অনিয়মের অভিযোগের পরিপ্রেক্ষিতে কার্যকর ব্যবস্থা গ্রহণের জন্য মহাপরিচালক, স্বাস্থ্য অধিদপ্তর; প্রধান প্রকৌশলী, এলজিইডি; জেলা প্রশাসক, ভোলা; জেলা প্রশাসক, কুমিল্লা; নির্বাহী প্রকৌশলী, এলজিইডি, ময়মনসিংহ ও নির্বাহী প্রকৌশলী, এলজিইডি, মাদারীপুরকে এ বিষয়ে চিঠি পাঠিয়েছে দুদক এনফোর্সমেন্ট ইউনিট।

বাংলাদেশ থেকে আরও পড়ুন
মন্তব্য করুন
বিজ্ঞাপন
বিজ্ঞাপন