গতকাল শনিবার ১০ মিনিটের জন্য স্তব্ধ হয়ে গিয়েছিল টাঙ্গাইল। সবাই নিজ নিজ কাজ ছেড়ে ১০ মিনিট নীরবে দাঁড়িয়ে ছিলেন। থেমে যায় সব যানবাহন। টাঙ্গাইল জেলাকে প্রস্তাবিত ময়মনসিংহ বিভাগে না নিয়ে ঢাকা বিভাগেই রাখার দাবিতে বেলা ১১টা থেকে এই কর্মসূচি পালন করা হয়।
টাঙ্গাইল জেলাকে ঢাকা বিভাগেই রাখার দাবি বাস্তবায়ন পরিষদের উদ্যোগে এ কর্মসূচি পালন করা হয়। শহরের নিরালার মোড়ে এ সময় বিভিন্ন রাজনৈতিক, সামাজিক, সাংস্কৃতিক সংগঠনের পক্ষ থেকে জমায়েত হয়ে স্তব্ধ কর্মসূচির সঙ্গে একাত্মতা প্রকাশ করা হয়।
কর্মসূচি শেষে সংক্ষিপ্ত সমাবেশে টাঙ্গাইল-৫ আসনের সাংসদ ছানোয়ার হোসেন, জেলা পরিষদের প্রশাসক ও জেলা আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক ফজলুর রহমান খান, জেলা জাতীয় পার্টির সভাপতি আবদুস সালাম চাকলাদার, জেলা আইনজীবী সমিতির সভাপতি শফিকুল ইসলাম, ভাসানী ফাউন্ডেশনের সভাপতি খন্দকার নাজিম উদ্দিন, জেলা ব্যবসায়ী ঐক্যজোটের সভাপতি আবুল কালাম মোস্তফা, টাঙ্গাইল প্রেসক্লাবের সম্পাদক, দাবি বাস্তবায়ন পরিষদের সদস্যসচিব জাফর আহমেদ প্রমুখ বক্তব্য দেন।
কর্মসূচি চলাকালে ঢাকা-বঙ্গবন্ধু সেতু মহাসড়কের টাঙ্গাইল শহর বাইপাসের রাবনা মোড়ে পরিবহন মালিক ও শ্রমিক ইউনিয়নের উদ্যোগে রাস্তায় দাঁড়িয়ে সব ধরনের যানবাহন চলাচল বন্ধ করে দিয়ে দাবির পক্ষে সমর্থন জানানো হয়।
একই দাবিতে মির্জাপুরে গতকাল সকাল ১০টা থেকে ১০ মিনিটের জন্য ‘মির্জাপুর স্তব্ধ’ কর্মসূচি পালিত হয়েছে। এতে আওয়ামী লীগ, বিএনপি ও জাতীয় পার্টিসহ এলাকার সর্বস্তরের মানুষ অংশ নেন।

বিজ্ঞাপন
বাংলাদেশ থেকে আরও পড়ুন
মন্তব্য করুন