ব্রাহ্মণবাড়িয়ার নাসিরনগর উপজেলায় তিন কলেজছাত্রীর ছবি বিকৃত করে ইন্টারনেটে ছেড়ে দেওয়ার অভিযোগে গত সোমবার সুব্রত দাস (২৫) নামের এক বখাটেকে গ্রেপ্তার করেছে পুলিশ। এ ব্যাপারে তিন বখাটের বিরুদ্ধে থানায় মামলা হয়েছে।
ওই তিন ছাত্রীর পরিবার ও পুলিশ সূত্রে জানা গেছে, উপজেলার গোর্কণ ইউনিয়নের এইচএসসি তিন পরীক্ষার্থীকে এলাকার কয়েকজন বখাটে যুবক কয়েক মাস ধরে উত্ত্যক্ত করছিলেন। বখাটেদের প্রেমের প্রস্তাবে সাড়া না দেওয়ায় ওই তিনজনের ছবি সংগ্রহ করেন তাঁরা। পরে বখাটেরা ওই তিনজনের ছবি বিকৃত করে ইন্টারনেটে ছেড়ে দেন।
বিষয়টি জানাজানি হলে ওই দিন বিকেলে উপপরিদর্শক (এসআই) শাহজালাল বাবুলের নেতৃত্বে একদল পুলিশ উপজেলার চৈয়ারকুড়ি বাজারের তুহিন টেলিকমের মালিক সুব্রত দাসকে গ্রেপ্তার করেন। পরে তাঁর দোকান থেকে ওই তিন ছাত্রীর প্রকৃত ছবি, বিকৃত ছবিসহ কম্পিউটার জব্দ করে থানায় আনা হয়। পরে এ ঘটনায় পবিত্র পর্দান (২৫), সুব্রত ও নিতাই দাসকে আসামি করে তথ্যপ্রযুক্তি ও পর্নোগ্রাফি আইনে এক ছাত্রীর ভাই মামলা করেছেন।
ঘটনার সত্যতা নিশ্চিত করে নাসিরনগর থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) আবদুল কাদের প্রথম আলোকে জানান, সুব্রতকে গতকাল মঙ্গলবার আদালতের মাধ্যমে কারাগারে পাঠানো হয়েছে। ঘটনার সঙ্গে জড়িত বাকি দুজনকে গ্রেপ্তারের চেষ্টা চলছে।

বিজ্ঞাপন
বাংলাদেশ থেকে আরও পড়ুন
মন্তব্য করুন