বিজ্ঞাপন
বিজ্ঞাপন

গাড়িটি সড়কের পাশে ছিটকে পড়ে দুমড়েমুচড়ে যায়। এতে গুরুতর আহত হন জাফর আহমেদ ও আমিনুল ইসলাম। স্থানীয় লোকজন দুজনকে উদ্ধার করে হাসপাতালে নিয়ে গেলে কর্তব্যরত চিকিৎসক দুজনকেই মৃত ঘোষণা করেন।
নিহত জাফরের পরিবার সূত্রে জানা যায়, জীবিকার সন্ধানে প্রায় ১০ বছর আগে জাফর আহমেদ দক্ষিণ আফ্রিকায় পাড়ি জমান। সেখানে একটি ব্যবসা চালু করেন তিনি।

বিয়ে করার উদ্দেশ্যে কয়েক দিন আগে দেশে আসার কথা ছিল তাঁর। পরিবারের পক্ষ থেকে পাত্রীও পছন্দ করে রাখা হয়েছিল। কিন্তু করোনার নতুন ধরন অমিক্রন বিস্তার শুরু হওয়ায় ফ্লাইট বন্ধ হয়ে যাওয়ায় দেশে ফেরা অনিশ্চিত হয়ে পড়ে তাঁর। দক্ষিণ আফ্রিকায় জাফর আহমেদসহ তাঁরা তিন ভাই থাকতেন। স্থানীয় পাইকারি ব্যবসায়ী ছিলেন জাফর। দুই মাস আগে তাঁর দোকানে কর্মচারী হিসেবে যোগ দিয়েছিলেন আমিনুল।

নিহত দুজনের লাশ দ্রুত দেশে আনার জন্য পরিবারের পক্ষ থেকে সরকারের কাছে সহযোগিতা চাওয়া হয়েছে। কাদিরপুর ইউনিয়ন পরিষদের ৩ নম্বর ওয়ার্ডের সদস্য জহিরুল ইসলাম বলেন, নিহত জাফর আহমেদ তাঁর ওয়ার্ডের ঘাটলা গ্রামের সোলায়মান মিয়ার বাড়ির রকিয়ত উল্যার ছেলে। দুই বোন ও চার ভাইয়ের মধ্যে তিনি ছিলেন দ্বিতীয়। জাফরের মৃত্যুতে তাঁর পরিবারে শোকের মাতম চলছে।

বাংলাদেশ থেকে আরও পড়ুন
মন্তব্য করুন
বিজ্ঞাপন
বিজ্ঞাপন