default-image

নরসিংদীর পলাশ উপজেলার ঘোড়াশালে মালবাহী ট্রাকের চাপায় ঝিনুক নামের একটি শিশুর মৃত্যু হয়েছে। আজ বৃহস্পতিবার ভোরে ঘোড়াশাল-টঙ্গী আঞ্চলিক সড়কের দক্ষিণ চরপাড়ায় শহীদ ময়েজউদ্দিন সেতুর ঘোড়াশাল প্রান্তে এ ঘটনা ঘটে।

সেতু থেকে নামার সময় নিয়ন্ত্রণ হারিয়ে ট্রাকটি একটি বাড়িতে উঠে গেলে তাতে চাপা পড়ে ঘুমন্ত শিশুটির (৭) মৃত্যু হয়েছে।

এ ঘটনায় গুরুতর আহত হয়েছেন আরও চারজন। তাঁরা হলেন ঝিনুকের বাবা শফি মিয়া (৪২), মা রুমা বেগম (৩৫), বড় বোন শাহাজাদী (১৭) ও তাঁদের প্রতিবেশী নুরু মিয়া (৬৫)। আহত চারজনকেই স্থানীয় একটি বেসরকারি হাসপাতালে প্রাথমিক চিকিৎসা দেওয়ার পর উন্নত চিকিৎসার জন্য নরসিংদী সদর হাসপাতালে পাঠানো হয়েছে।

পুলিশ ও স্থানীয় সূত্রে জানা যায়, ভোরে নরসিংদীগামী একটি মালবাহী ট্রাক ঘোড়াশালের শহীদ ময়েজউদ্দিন সেতু থেকে নামতে গিয়ে নিয়ন্ত্রণ হারিয়ে নুরু মিয়ার একটি দোকানঘর গুঁড়িয়ে দিয়ে ওই বাড়িতে ঢুকে পড়ে। এ সময় ট্রাকের চাকায় পিষ্ট হয়ে শিশু ঝিনুকের মৃত্যু হয় এবং চারজন গুরুতর আহত হন। খবর পেয়ে ঘোড়াশাল পুলিশ ফাঁড়ির ইনচার্জ জহিরুল আলম ও পলাশ ফায়ার সার্ভিসের জ্যেষ্ঠ স্টেশন অফিসার সাদিকুল বারী ঘটনাস্থলে যান।

ঘটনার সত্যতা নিশ্চিত করে ঘোড়াশাল পুলিশ ফাঁড়ির ইনচার্জ জহিরুল আলম বলেন, দুর্ঘটনার পরপরই ট্রাকের চালক ও তাঁর সহকারী পালিয়ে যান। তবে ট্রাকটি জব্দ করা হয়েছে। এ ঘটনায় অভিযোগ পেলে মামলা নেওয়া হবে।

বিজ্ঞাপন
মন্তব্য পড়ুন 0