default-image

হেফাজতে ইসলামের হরতালে ভূমি অফিসে হামলা হওয়ায় নাশকতায় ক্ষয়ক্ষতি এড়াতে সতর্ক থাকার পাশাপাশি জমির ছায়া দলিল তৈরির নির্দেশনা দিয়েছে ভূমি মন্ত্রণালয়। গতকাল সোমবার এ নির্দেশনা দেওয়া হয়।

কী পরিমাণ ক্ষয়ক্ষতি হয়েছে, তা নিরূপণের নির্দেশও দিয়েছে মন্ত্রণালয়। ভূমি-সংক্রান্ত কাজ পরিচালনা এবং জালিয়াতি রোধে পুড়ে যাওয়া ও ক্ষতিগ্রস্ত দলিলের ছায়া দলিল আগামী ৭ কর্মদিবসের মধ্যে তৈরি করতে বলা হয়েছে। এ জন্য প্রতি ইউনিয়ন ভূমি অফিসে একজন করে সহকারী কমিশনার (ভূমি) নিয়োগ দিতে বলা হয়েছে।

হেফাজতের সাম্প্রতিক বিক্ষোভ ও সংঘাতের মধ্যে চট্টগ্রামের হাটহাজারী ও ব্রাহ্মণবাড়িয়ার সদর উপজেলা ভূমি অফিস, ইউনিয়ন ভূমি অফিস ও সরকারি অন্যান্য ভবনে ভাঙচুর চালানো হয়। সে সময় অগ্নিসংযোগে সরকারি অনেক নথি পুড়ে যায়। হামলার সময় বিভিন্ন সরকারি নথি ও দলিল ভবনের বাইরে ফেলে দেওয়া হয়।

বিজ্ঞাপন

চট্টগ্রামের হাটহাজারী উপজেলা ও পার্শ্ববর্তী সদর ইউনিয়ন ভূমি অফিস ও অন্যান্য সরকারি ভবনের ক্ষয়ক্ষতি নিরূপণ করে ৭ কর্মদিবসের মধ্যে বিস্তারিত প্রতিবেদন দেওয়ার নির্দেশ দেয় মন্ত্রণালয়। নির্দেশনায় ভূমি ও অন্যান্য সরকারি অফিসে ভাঙচুর ও ক্ষয়ক্ষতিকে ‘অপূরণীয় ও অনাকাঙ্ক্ষিত’ হিসেবে উল্লেখ করে ভবিষ্যতে এমন ঘটনা প্রতিরোধ করতে ও দলিল সংরক্ষণে প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা গ্রহণেরও অনুরোধ করা হয়।

বাংলাদেশ থেকে আরও পড়ুন
মন্তব্য করুন