ইংরেজি দৈনিক নিউ এজ কার্যালয়ে গতকাল রোববার রাতে তল্লাশি চালানোর চেষ্টা করেছে পুলিশ। পরে বিষয়টি ‘ভুল-বোঝাবুঝি’ বলে পুলিশের পক্ষ থেকে জানানো হয়।
পত্রিকাটির সাংবাদিকেরা জানান, রাত সোয়া আটটার দিকে তেজগাঁও শিল্পাঞ্চল থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) মো. সালাহউদ্দীনের নেতৃত্বে ২০-২৫ জন পুলিশের সদস্য পত্রিকাটির তেজগাঁওয়ের কার্যালয়ের সামনে আসেন। তাঁরা জানান, তাঁদের কাছে খবর আছে, জামায়াত-শিবিরের নেতা-কর্মীরা এই গলিতে অবস্থান নিয়েছেন। তাঁরা কার্যালয়ের ভেতরে ঢুকে তল্লাশি চালাতে চান। তবে তল্লাশি পরোয়ানা দেখতে চাইলে তাঁরা তা দেখাতে পারেননি। এ সময় তাঁরা সাংবাদিকদের সঙ্গে বাগ্বিতণ্ডায় জড়ান এবং সাংবাদিকদের দেখে নেওয়ার হুমকি দেন। পুলিশ সেখানে জড়ো হওয়া সাংবাদিকদের ভিডিওচিত্র ধারণ করে নিয়ে যায়।
পত্রিকাটির সম্পাদক নূরুল কবীর বলেন, নিউ এজ কার্যালয়ে এভাবে পুলিশ আসা অত্যন্ত অপমানজনক, লজ্জাজনক। সাংবাদিকতার জন্য এটা ভয়ানক হুমকি। সরকার ভুল লোককে ভয় দেখাতে চায়।
তেজগাঁও শিল্পাঞ্চল থানার ওসি বলেন, নিউ এজ ভবনের পাশে আরেকটি ভবনে নাশকতার উদ্দেশ্যে জামায়াতের লোকজন জড়ো হচ্ছে—এ খবর পেয়ে পুলিশ সেখানে যায়। নিউ এজ পত্রিকার কিছু সাংবাদিক ‘সেখানে পুলিশ কেন গিয়েছে’ ইত্যাদি বিষয়ে নানা প্রশ্ন শুরু করেন। পরে সেখান থেকে পুলিশ চলে আসে। নিউ এজ পত্রিকায় তল্লাশি চালানো পুলিশের উদ্দেশ্য ছিল না। বিষয়টিকে ভুল-বোঝাবুঝি বলে উল্লেখ করেন ওসি।

বিজ্ঞাপন
বাংলাদেশ থেকে আরও পড়ুন
মন্তব্য করুন