কক্সবাজার সমুদ্রসৈকত-সংলগ্ন একটি সরকারি পাহাড় কাটার দায়ে নয় লাখ টাকা জরিমানা দিয়েছেন মো. ইলিয়াছ সওদাগর নামের এক ব্যক্তি। ইলিয়াছের নেতৃত্বে গত কয়েক বছরে ওই পাহাড়ের বিশাল অংশ কেটে ফেলা হয়।

২৫ ডিসেম্বর পরিবেশ অধিদপ্তরের সদর দপ্তরে জরিমানার নয় লাখ টাকা পরিশোধ করে ছাড়া পান মো. ইলিয়াছ।

পরিবেশ অধিদপ্তরের কক্সবাজারের সহকারী পরিচালক সরদার শরিফুল ইসলাম গতকাল সোমবার প্রথম আলোকে বলেন, সমুদ্রসৈকত-সংলগ্ন কলাতলীর টিঅ্যান্ডটি পাহাড়ের বিশাল একটি অংশ কেটে সেখানে অবৈধ স্থাপনা তৈরি করেন ভূমিদস্যু ইলিয়াছ সওদাগর। এ নিয়ে বিভিন্ন গণমাধ্যমে খবর প্রকাশিত হলে অনুসন্ধান করে পাহাড় কাটার সত্যতা পাওয়া যায়। এরপর ইলিয়াছকে ২৫ ডিসেম্বর ঢাকার সদর দপ্তরে হাজির হতে বলা হয়। সেদিন তিনি সদর দপ্তরে হাজির হয়ে পাহাড় কাটার ঘটনা স্বীকার করলে তাঁকে নয় লাখ টাকা জরিমানা করা হয় এবং আটক করা হয়। পরে জরিমানার টাকা পরিশোধ এবং ভবিষ্যতে আর কখনো পাহাড় কাটবেন না—এ মর্মে লিখিত অঙ্গীকার দেওয়ার পর তাঁকে ছেড়ে দেওয়া হয়।

বিজ্ঞাপন
বাংলাদেশ থেকে আরও পড়ুন
মন্তব্য করুন