পুকুরে ভাসছিল দুই ভাইয়ের লাশ

বিজ্ঞাপন
default-image

বাড়ির পাশে পুকুরে মাছ ধরতে গিয়েছিল ছোটন রায় (১০) ও টমাস দাস (১২)। সম্পর্কে তারা মামাতো-ফুফাতো ভাই। মাছ ধরার কোনো এক ফাঁকে পুকুরের পানিতে ডুবে মৃত্যু হয় দুই ভাইয়ের। আজ মঙ্গলবার দুপুর ১২টার দিকে গ্রামবাসী পুকুরে ভাসতে দেখেন দুই ভাইয়ের লাশ।

দিনাজপুরের চিরিরবন্দর উপজেলার সাইতাড়া ইউনিয়নের খোচনা ভাদুরিয়া গ্রামে এ ঘটনা ঘটেছে।
মারা যাওয়া দুই শিশুর মধ্যে ছোটন রায় ওই গ্রামের মনমোহন রায় আর টমাস দাস একই গ্রামের ধনঞ্জয় দাসের ছেলে।
গ্রামবাসী সূত্রে জানা যায়, মাঠে দুই ভাই আজ সকাল থেকে খেলছিল। তাদের এক স্বজন বাড়িতে যাওয়ার কথা বললে তারা বাড়ির দিকে রওনা হয়। পরে বাড়ির পাশে পুকুর পাড়ে রাখা জাল নিয়ে পুকুরে মাছ ধরতে শুরু করে। এরপর দীর্ঘক্ষণ তাদের আর কেউ দেখেননি। বাড়িতে তাদের না দেখে পরিবারের লোকজন খুঁজতে শুরু করেন। দুপুর ১২ টার দিকে এক প্রতিবেশী পুকুরের পানিতে দুই ভাইকে ভাসতে দেখে চিৎকার করে ওঠেন। পরে লোকজন দ্রুত পুকুর থেকে দুই ভাইকে তুলে উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে নিয়ে এলে কর্তব্যরত চিকিৎসক তাদের মৃত ঘোষণা করেন।

চিরিরবন্দর থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) সুব্রত কুমার সরকার এ তথ্যের সত্যতা নিশ্চিত করেছেন। তিনি জানান, ধারণা করা যাচ্ছে, পুকুরে মাছ ধরার একপর্যায়ে তারা গভীর পানিতে তলিয়ে যায়। পুলিশ ঘটনাস্থল পরিদর্শন করেছে। দুই শিশুর লাশ পরিবারের কাছে হস্তান্তর করা হয়েছে।

বিজ্ঞাপন
মন্তব্য পড়ুন 0
বিজ্ঞাপন