প্যারিসের ‘প্রিক্স দে লা ফটোগ্রাফি’ পুরস্কার পেলেন রকিবুল

বিজ্ঞাপন
default-image

ইউরোপের অন্যতম প্রধান আলোকচিত্র প্রতিযোগিতা ও প্রদর্শনীর একটি প্যারিসের ‘প্রিক্স দে লা ফটোগ্রাফি ২০২০’। এবার সেই প্রদর্শনীতে জায়গা করে নিল বাংলাদেশের ডকুমেন্টারি আলোকচিত্রী মোহাম্মদ রকিবুল হাসানের ‘দ্য লাস্ট সেভিংস’ শিরোনামের ফটো সিরিজ। করোনার কারণে সৃষ্ট অর্থনৈতিক মন্দায় বাংলাদেশের নিম্ন আয়ের কর্মহীন মানুষের অনিশ্চিত জীবনের প্রতিবিম্ব ধরা পড়েছে ছবিগুলোতে। প্রদর্শনী ও প্রতিযোগিতায় মোট আটটি বিভাগ রয়েছে। ছবিগুলোর জন্য রকিবুল হাসান ‘বেস্ট নিউ ট্যালেন্ট ২০২০’ হিসেবে ‘প্রেস’ বিভাগে প্রথম স্থান অধিকার করেছেন।

বিজ্ঞাপন
বিজ্ঞাপন

এক সংবাদ বিজ্ঞপ্তিতে আয়োজকেরা জানিয়েছেন, এ বছর এই প্রতিযোগিতায় ১২০টি দেশ থেকে ৫ হাজারের বেশি ছবি জমা পড়ে। বর্ষসেরা আলোকচিত্রীর স্বীকৃতি পেয়েছেন ইতালির আলবের্তো জুলিয়ানি। এই দুই প্রধান পুরস্কার ছাড়াও রয়েছে গোল্ড, সিলভার ও ব্রোঞ্জ পদক এবং অনারেবল মেনশন পুরস্কার। বিজয়ীদের ছবি নিয়ে প্যারিসের ‘স্পাস বুহোপেয়ার’ প্রদর্শনকক্ষে প্রদর্শনীর আয়োজন করা হবে। প্রদর্শনী চলবে আগামী ১৪ থেকে ২০ ডিসেম্বর পর্যন্ত।

বিজ্ঞাপন
বিজ্ঞাপন
default-image

এ পুরস্কার ছাড়াও মোহাম্মদ রকিবুল হাসান এল বি ব্রাউন মেমোরিয়াল প্রাইজ, লুসি অ্যাওয়ার্ড, ইউএনআইসি, সোফিয়া বিশ্ববিদ্যালয়ের অ্যাওয়ার্ড অব এক্সেলেন্সসহ আরও বেশ কিছু পুরস্কার অর্জন করেছেন। বর্তমানে তিনি ফ্রিল্যান্স ডকুমেন্টারি ফটোগ্রাফার ও তথ্যচিত্র নির্মাতা হিসেবে কাজ করছেন। তিনি প্রথম আলোকে বলেন, ‘পুরস্কার যদি জনমানুষের কাজে লাগে, তখন অন্য রকম ভালো লাগা কাজ করে। আমি অভিভূত হয়েছি, এই নতুন ধারার প্রামাণ্য আলোকচিত্রগুলো বিচারকদের মনে ধরেছে। এই মহামারির সময় কর্মহীন মানুষগুলো লড়াই করছেন, তা নিয়েই আমার সচিত্র প্রতিবেদন। এখানে উল্লেখ্য, পুরস্কার হিসেবে যে অর্থ আমি পাব, তা দিয়ে আমি আমার ছবির দরিদ্র মানুষগুলোর জন্য কিছু করতে চাই।’

বিজ্ঞাপন
মন্তব্য পড়ুন 0
বিজ্ঞাপন