বিজ্ঞাপন
বিজ্ঞাপন

গ্লোবাল ইনভেস্টিগেটিভ জার্নালিজম নেটওয়ার্ক সাংবাদিকতার উন্নয়নে কাজ করে থাকে—এমন প্রতিষ্ঠানগুলোর একটি আন্তর্জাতিক জোট। এই জোটের সদস্যরা অনুসন্ধানী এবং ডেটা সাংবাদিকদের মধে৵ নতুন নতুন তত্ত্ব ও তথ্য পরিবেশন ছাড়াও আয়োজন করেন প্রশিক্ষণের। তাঁরা এমন সব দেশেও কাজ করছেন, যেসব দেশে সরকার দমন-পীড়ন চালায় প্রতিপক্ষ আর গণমাধ্যমের ওপর।

প্রথম আলোয় প্রকাশিত প্রতিবেদন সম্পর্কে জিআইজেএন লিখেছে, ‘বাংলাদেশের ডিজিটাল নিরাপত্তা আইন গণমাধ্যমের বাক্‌স্বাধীনতায় হুমকি তৈরি করেছে। প্রায় ২ বছরের প্রচেষ্টায় ঢাকা সাইবার ট্রাইব্যুনাল থেকে এই আইনে হওয়া ২ হাজার ৬০০টি মামলা সংগ্রহ করেন দৈনিক প্রথম আলোর সাংবাদিক। তাতে দেখা যায়, সাইবার অপরাধ মামলার বেশির ভাগ অভিযোগ রাষ্ট্রপক্ষ প্রমাণ করতে পারেননি। গত ৭ বছরে ৭৬৮টি মামলা নিষ্পত্তি হয়েছে। এগুলোর মধ্যে সাজা হয়েছে মাত্র ২২টি মামলায়। শতকরা হিসাবে সাজার হার ২ দশমিক ৮৬। বাকি ৯৭ দশমিক ১৪ শতাংশের বেশি মামলায় আসামিরা অব্যাহতি অথবা খালাস পেয়েছেন।’

default-image

এ ছাড়া ইংরেজি দৈনিক ডেইলি স্টার ও যমুনা টেলিভিশনের দুটি প্রতিবেদন জিআইজেএনের সেরা প্রতিবেদনের তালিকায় স্থান পেয়েছে। বেসরকারি টেলিভিশন ‘চ্যানেল ২৪’, ‘৭১ টেলিভিশন’ ও ‘মাছরাঙা টেলিভিশনের’ একটি করে প্রতিবেদন সেরা প্রতিবেদন নির্বাচিত হয়েছে। ১১ জানুয়ারি জিআইজেএন সেরা প্রতিবেদনের এই তালিকা প্রকাশ করে।

বাংলাদেশ থেকে আরও পড়ুন
মন্তব্য করুন
বিজ্ঞাপন
বিজ্ঞাপন