ফরিদপুরে পাঁচ পুলিশসহ ৪৮ জনের করোনা শনাক্ত

বিজ্ঞাপন
default-image

ফরিদপুরে নতুন করে আরও ৪৮ জনের শরীরে করোনাভাইসের সংক্রমণ শনাক্ত হয়েছে। এর মধ্যে পাঁচজন পুলিশ সদস্য ও তিনজন ব্যাংক কর্মী। জেলায় বর্তমানে করোনায় সংক্রমিত ব্যক্তির সংখ্যা ৫৫৫। ফরিদপুর মেডিকেল কলেজের করোনা শনাক্তকরণ ল্যাব সূত্রে গত সোমবার রাতে এসব তথ্য জানা যায়।

ল্যাব সূত্রে জানা যায়, নতুন শনাক্ত ৪৮ জনের মধ্যে সদর উপজেলার ১০ জন, বোয়ালমারীতে ৯ জন, সদরপুর ও ভাঙ্গায় ৮ জন করে, চরভদ্রাসনে ৫ জন, আলফাডাঙ্গায় ৩ জন ও নগরকান্দায় ২ জন। ৪৮ জনের মধ্যে ১০ জন নারী ও ৩৮ জন পুরুষ।

ফরিদপুরে এ পর্যন্ত করোনাভাইরাসে তিনজন মুক্তিযোদ্ধাসহ মোট নয়জনের মৃত্যু হয়েছে। এ ছাড়া জেলার মধুখালীর বাসিন্দা এক সাবেক সেনাসদস্য এবং সালথার এক পুলিশ সদস্য করোনাভাইরাসে সংক্রমিত হয়ে ঢাকায় মারা গেছেন। তাঁদের মৃতদেহ অবশ্য ফরিদপুরে এনে দাফন করা হয়েছে।

করোনা শনাক্তকরণ ল্যাব সূত্রে জানা গেছে, সোমবার এই ল্যাবে মোট ২৮১ জনের নমুনা পরীক্ষা করে প্রতিবেদন প্রস্তুত করা হয়। এর মধ্যে করোনা ‘পজিটিভ’ হিসেবে শনাক্ত হন ৬৯ জন। তাঁদের মধ্যে ফরিদপুরে ৫২ জন (চারজন পুরোনো রোগী), মাদারীপুর ও রাজবাড়ীর দুজন করে, বাগেরহাটের ১ জন এবং গোপালগঞ্জের ১২ জন।

সোমবার পর্যন্ত ফরিদপুরে মোট শনাক্ত ৫৫৫ জনের মধ্যে সদর উপজেলায় ১৩৪ জন, ভাঙ্গায় ১৩৯ জন, বোয়ালমারীতে ৮৪, নগরকান্দায় ৪৪, চরভদ্রাসনে ৪৮, আলফাডাঙ্গায় ৩৫, সদরপুরে ৩৮, মধুখালীতে ১৬ এবং সালথায় ১৭ জন।

ফরিদপুরের সিভিল সার্জন ছিদ্দীকুর রহমান বলেন, করোনায় সংক্রমিত হিসেবে নতুন শনাক্ত ব্যক্তিদের আপাতত বাড়িতে রেখে চিকিৎসা দেওয়া হবে। তবে শারীরিক পরিস্থিতির অবনতি হলে তাঁদের ফরিদপুরে করোনা চিকিৎসার জন্য নির্ধারিত হাসপাতালে স্থানান্তর করা হবে।

বিজ্ঞাপন
মন্তব্য পড়ুন 0
বিজ্ঞাপন