বঙ্গবন্ধু কর্নারের বই কেনার অভিযোগ তদন্তে সংসদীয় কমিটি

বিজ্ঞাপন
default-image

দেশের সব সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ে বঙ্গবন্ধু কর্নারের জন্য বই কেনায় অনিয়ম ও দুর্নীতির অভিযোগ তদন্তে একটি উপকমিটি গঠন করেছে প্রাথমিক ও গণশিক্ষা মন্ত্রণালয়-সম্পর্কিত সংসদীয় কমিটি। আজ বুধবার জাতীয় সংসদ ভবনে অনুষ্ঠিত কমিটির সভায় এটি গঠন করা হয়।

বিজ্ঞাপন
বিজ্ঞাপন

বৈঠক সূত্র জানায়, বঙ্গবন্ধু কর্নারের বই কেনায় অনিয়ম নিয়ে বিভিন্ন গণমাধ্যমে প্রকাশিত প্রতিবেদন নিয়ে বৈঠকে আলোচনা হয়। ইতিমধ্যে ৩০ কোটি টাকায় আটটি বই কেনার সিদ্ধান্ত হয়। এর মধ্যে জার্নি মাল্টিমিডিয়া ও স্বাধীকা পাবলিশার্স নামের দুটি প্রকাশনা প্রতিষ্ঠানেরই তিনটি বই আছে। এই তিনটি বইয়ের (প্রতিটি ৬৫ হাজার ৭০০ কপি করে) পেছনেই প্রায় ২০ কোটি টাকা খরচ হচ্ছে। এর মধ্যে দুটি বইয়ের প্রকাশকের নাম বদল করা হয়েছে বলে অভিযোগ উঠেছে, যার একটি এর আগে মুক্তিযুদ্ধবিষয়ক মন্ত্রণালয় প্রকাশ করেছিল। অন্যটি করেছিল বাংলাদেশ কারা কর্তৃপক্ষ। বইয়ের দামও বেশি দেখানো হয়েছে।

বিজ্ঞাপন
বিজ্ঞাপন
বিজ্ঞাপন

সূত্র জানায়, বৈঠকে এ বিষয়ে প্রাথমিক ও গণশিক্ষা মন্ত্রণালয়ের কাছে জানতে চায় কমিটি। মন্ত্রণালয় জানায়, মুক্তিযুদ্ধবিষয়ক মন্ত্রণালয় তাদের চিঠি দিয়েছে। এর পরিপ্রেক্ষিতেই অনুমোদন দেওয়া হয়েছে। তখন কমিটি জানতে চায়, বাজারদর যাচাই করা হয়েছে কি না? বাজারদরের চেয়ে বেশি দরে বই কেনা হয়েছে। কমিটি বইয়ের প্রকাশকের নাম বদল করা হয়েছে কি না, দাম বেশি ধরা হয়েছে কি না, এসব বিষয় তদন্ত করে দেখার সিদ্ধান্ত নিয়েছে। পাশাপাশি এসব বইয়ের বিল আপাতত আটকে রাখতে বলেছে।

বিজ্ঞাপন
বিজ্ঞাপন

সংসদ সচিবালয়ের এক সংবাদ বিজ্ঞপ্তিতে বলা হয়, গণমাধ্যমে প্রকাশিত পুস্তক ক্রয়ের অনিয়মের বিষয়ে তদন্ত করার জন্য সাংসদ নজরুল ইসলাম বাবুকে আহ্বায়ক করে চার সদস্যের উপকমিটি গঠন করা হয়েছে। কমিটির অন্য সদস্যরা হলেন, আলী আজম, বেগম শিরীন আখতার ও মো. মোশারফ হোসেন।

সংসদীয় কমিটির সভাপতি মোস্তাফিজুর রহমানের সভাপতিত্বে কমিটির সদস্য এবং প্রাথমিক ও গণশিক্ষা প্রতিমন্ত্রী জাকির হোসেন, আলী আজম, নজরুল ইসলাম বাবু, বেগম শিরীন আখতার, ফেরদৌসী ইসলাম ও মোশারফ হোসেন বৈঠকে অংশ নেন।

বিজ্ঞাপন
মন্তব্য পড়ুন 0
বিজ্ঞাপন