বিজ্ঞাপন
বিজ্ঞাপন

বন্দরের সচিব ওমর ফারুক প্রথম আলোকে বলেন, ‘আগুন লাগার পর বন্দর ও আগ্রাবাদ ফায়ার সার্ভিসের কর্মীরা আগুন নিয়ন্ত্রণে আনেন। আগুন যাতে ছড়িয়ে পড়তে না পারে, সে জন্য কনটেইনারটিকে আলাদা করা হয়েছে। কনটেইনারটিতে ইলেকট্রনিকস পণ্য ও ব্যাটারি ছিল, যেগুলো পুড়ে গেছে।’

অগ্নিকাণ্ডের ঘটনায় তিন সদস্যের তদন্ত কমিটি গঠন করা হয়েছে বলে জানান বন্দরের সচিব। কমিটি অগ্নিকাণ্ডের কারণ খুঁজে বের করবে।

বাংলাদেশ থেকে আরও পড়ুন
মন্তব্য করুন
বিজ্ঞাপন
বিজ্ঞাপন