বাহারের ভোটের প্রচারণায় বেয়াই

বিজ্ঞাপন
default-image

দুজনই দুটি জেলার সদর আসনের প্রার্থী। দলও একই—আওয়ামী লীগ। দুজনই অন্তত দুই বা ততোধিকবার সাংসদ হয়েছেন। দুজনেরই নির্বাচনী এলাকায় দোর্দণ্ড প্রতাপ রয়েছে। সাংগঠনিক শক্তিও বেশ। দীর্ঘদিন থেকে তাঁরা নির্বাচনী মাঠে তৎপর। তবুও তাঁরা আত্মীয়তার কারণে একে অন্যের নির্বাচনী এলাকায় গিয়ে প্রচারণায় অংশ নিচ্ছেন।

ওই দুজন হলেন কুমিল্লা-৬ (আদর্শ সদর, সিটি করপোরেশন ও সেনানিবাস এলাকা) আসনে আওয়ামী লীগের প্রার্থী সাংসদ আ ক ম বাহাউদ্দিন বাহার ও মাদারীপুর-২ (সদর) আসনে দলের প্রার্থী নৌপরিবহনমন্ত্রী শাজাহান খান। তাঁরা বেয়াই।

দলীয় সূত্রে জানা যায়, গত রোববার রাতে কুমিল্লা নগরের শাসনগাছা বাস টার্মিনাল এলাকায় আ ক ম বাহাউদ্দিনের নির্বাচনী সভা হয়। সেখানে প্রধান অতিথির বক্তব্য দেন নৌপরিবহনমন্ত্রী শাজাহান খান। সেখানে তিনি বলেন, দেশের মানুষের আস্থার জায়গায় স্থান করে নিয়েছেন প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা। ৩০ ডিসেম্বর মানুষ নৌকার ভোট উৎসবের অপেক্ষায় আছে। উন্নয়নের মার্কা নৌকা, শেখ হাসিনার মার্কা নৌকা। বাহার ভাইয়ের মার্কা নৌকা। শেখ হাসিনা ক্ষমতায় থাকলে দেশের উন্নয়ন হয়।

এর আগে ১২ ডিসেম্বর বিকেলে মাদারীপুর জেলা সদর জামে মসজিদের মাঠে শাজাহান খানের নির্বাচনী সভা হয়। সেখানে বিশেষ অতিথির বক্তব্য দেন আ ক ম বাহাউদ্দিন। সেখানে তিনি বলেন, শাজাহান খান মাদারীপুরবাসীর ভাগ্য পরিবর্তনের সফল মানুষ। এ অঞ্চলের মানুষের সমস্যা সমাধানে শাজাহান খানের বিকল্প নেই। ৩০ ডিসেম্বর তাঁকে ভোট দিন। ২০৪১ সালের উন্নত বাংলাদেশ গড়ার জন্য নৌকা প্রতীকে ভোট দিন। চলতি বছর আ ক ম বাহাউদ্দিনের মেয়ে আয়মন বাহারের সঙ্গে শাজাহান খানের ছেলে আফিস খানের বিয়ে হয়।

বিজ্ঞাপন
মন্তব্য পড়ুন 0
বিজ্ঞাপন