default-image

ময়মনসিংহের ঈশ্বরগঞ্জে বৃদ্ধ বাবা–মাকে নির্যাতনের অভিযোগ উঠেছে সন্তানদের বিরুদ্ধে। তাঁদের লিখিত অভিযোগ পেয়ে উপজেলা প্রশাসন আজ মঙ্গলবার বাড়িতে অভিযান চালায়। বিষয়টি টের পেয়ে পালিয়ে যান ওই সন্তানেরা।

জানতে চাইলে ঈশ্বরগঞ্জ উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা (ইউএনও) জাকির হোসেন বলেন, ওই বৃদ্ধ দম্পতির সন্তানদের বাড়িতে পাননি তিনি। পরে স্থানীয় জনপ্রতিনিধি ও গণ্যমান্য ব্যক্তিদের বিষয়টি দেখার জন্য বলা হয়েছে। এরপরও বাবা–মায়ের দায়িত্ব না নিলে সন্তানদের বিরুদ্ধে আইনগত ব্যবস্থা নেওয়া হবে।

বিজ্ঞাপন

এলাকাবাসী সূত্রে জানা যায়, ওই দম্পতির বাড়ি উপজেলার ফানুর গ্রামে। তাঁদের পাঁচ ছেলে ও দুই মেয়ের মধ্যে সবাই স্বাবলম্বী। ছেলেরা স্ত্রী-সন্তান নিয়ে আলাদা বসবাস করেন। সম্প্রতি তাঁরা বাবার জমিজমা ভাগ-বাঁটোয়ারা করে দেওয়ার দাবি জানান। এতে রাজি না হওয়ায় ক্ষুব্ধ হয়ে তাঁরা বাবা-মাকে গালিগালাজ করেন।
ওই বৃদ্ধ দম্পতি জানান, সম্প্রতি তাঁদের দুজনকে বেঁধে মারধর করেন বড় ছেলে হজরত আলী। অন্য ছেলেরা বাড়ি ছেড়ে চলে যেতে তাঁদের ওপর জোর করেন। বাধ্য হয়ে তাঁরা ইউএনওর কার্যালয়ে গিয়ে অভিযোগ করেন।

লিখিত অভিযোগ পেয়ে আজ দুপুরে ইউএনও জাকির হোসেন ফানুর গ্রামে যান। প্রশাসনের লোকজন আসার খবর জানতে পেরে বৃদ্ধ দম্পতির সন্তানেরা বাড়ি ছেড়ে পালিয়ে যান। অবশ্য তাঁদের স্ত্রীরা বাড়িতে ছিলেন। তাঁরা দাবি করেন, এমন অভিযোগ সঠিক নয়।

ঈশ্বরগঞ্জ থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) মো. আবদুল কাদের মিয়া বলেন, থানার একজন উপপরিদর্শককে বৃদ্ধ দম্পতির বাড়িতে পাঠানো হয়েছিল। বিষয়টি খতিয়ে দেখার পর পরবর্তী ব্যবস্থা নেওয়া হবে।

বিজ্ঞাপন
বাংলাদেশ থেকে আরও পড়ুন
মন্তব্য করুন