default-image

মৌলভীবাজারের বড়লেখায় কোভিড-১৯ রোগে আক্রান্ত এক ব্যক্তি (৭৮) মারা গেছেন। গতকাল শুক্রবার রাতে সিলেটের একটি বেসরকারি হাসপাতালে মারা যান তিনি। এই উপজেলায় ওই ব্যক্তিই প্রথম, যিনি এ রোগে মারা গেলেন। তিনি প্রাথমিক বিদ্যালয়ের অবসরপ্রাপ্ত শিক্ষক ছিলেন।

আজ শনিবার সকালে স্বাস্থ্যবিধি মেনে ওই শিক্ষককে দাফন করেছে মৌলভীবাজার ইকরামুল মুসলিম ফাউন্ডেশন। উপজেলা স্বাস্থ্য বিভাগ সূত্রে জানা গেছে, ওই ব্যক্তি কিছুদিন ধরে জ্বর ও কাশিতে ভুগছিলেন। গত সোমবার তিনি নমুনা পরীক্ষার জন্য দেন। বুধবার রাতে প্রতিবেদন ‘পজিটিভ’ আসে। তিনি বাড়িতে থেকেই চিকিৎসা নিচ্ছিলেন। হঠাৎ করে শারীরিক অবস্থা খারাপ হওয়ায় গতকাল তাঁকে সিলেটের মাউন্ট এডোরা হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছিল। ওই দিন রাত সাড়ে ১২টার দিকে তিনি সেখানে চিকিৎসাধীন অবস্থায় মারা যান। তিনি দীর্ঘদিন ধরে ডায়াবেটিসসহ বিভিন্ন রোগে ভুগছিলেন।

বড়লেখা উপজেলা স্বাস্থ্য ও পরিবার পরিকল্পনা কর্মকর্তা রত্নদ্বীপ বিশ্বাস তাঁর মৃত্যুর বিষয়টি নিশ্চিত করে আজ প্রথম আলোকে জানান, ফোনে নিয়মিত তাঁর খোঁজখবর নেওয়া হচ্ছিল। বৃহস্পতিবার ফোন করলে ওই ব্যক্তি জানান, তাঁর জ্বর ছাড়া আর কোনো সমস্যা নেই। গতকাল ফোন দিয়ে জানা যায়, তাঁর হার্ট অ্যাটাক হয়েছে। তাঁকে হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে। তিনি হৃদ্‌রোগে আক্রান্ত হয়ে মারা গেছেন। করোনার কারণে হার্ট অ্যাটাক হলো কি না, তা বলা যাচ্ছে না। উপজেলায় এই প্রথম করোনা পজিটিভ একজনের মৃত্যু হয়েছে।

ওই কর্মকর্তা জানান, বড়লেখায় এ পর্যন্ত ৬৫ জনের করোনা শনাক্ত হয়েছে। এর মধ্যে ৪০ জন সুস্থ হয়েছেন।

বিজ্ঞাপন
মন্তব্য পড়ুন 0