default-image

মধুপুর বনের গারো জাতিগোষ্ঠীর মানুষের বন্ধু, মুক্তিযোদ্ধা ফাদার ইউজিন হোমরিক মার্কিন যুক্তরাষ্ট্রে পরলোকগমন করেছেন। করোনা ভাইরাসে আক্রান্ত হয়ে চিকিৎসাধীন অবস্থায় বাংলাদেশ সময় আজ রোববার সকাল আটটায় তিনি শেষ নিঃশ্বাস ত্যাগ করেন। দীর্ঘ ৫০ বছরের বেশি সময় ধরে তিনি টাঙ্গাইলের মধুপুর বনে কাটান।

ফাদার হোমরিকের মৃত্যুর খবর নিশ্চিত করেছেন মধুপুরের জলছত্র ধর্মপল্লীর পাল পুরোহিত ফাদার ডনেল স্টিফেন ক্রুশ । ফাদার হোমরিকের মৃত্যুতে শোকের ছায়া নেমে এসেছে মধুপুরের গারোদের মাঝে।

ক্যাথলিক ধর্মযাজক ফাদার হোমরিক ১৯২৮ সালে যুক্তরাষ্ট্রে মিশিগানে জন্মগ্রহণ করেন। তিনি লেখাপড়া করেছেন মিশিগানের নটরডেম বিশ্ববিদ্যালয় এবং মেরিনল কলেজে।

ফাদার হোমরিক ১৯৬০ সাল থেকে ২০১৬ সাল পর্যন্ত মধুপুর গড়ে থেকে ধর্ম প্রচার করেন। পাশাপাশি এই এলাকার বনবাসী গারোদের মধ্যে শিক্ষাবিস্তার এবং স্বাস্থ্যসেবায় ব্যাপক কাজ করেছেন। ১৯৭১ সালে মুক্তিযুদ্ধের সময় জলছত্র ধর্মপল্লীতে তিনি মুক্তিকামী অনেক মানুষকে আশ্রয় দিয়েছেন। মুক্তিযোদ্ধাদের চিকিৎসা সেবাসহ নানাভাবে সহায়তা করেছেন। এজন্য তাকে মুক্তিযোদ্ধার সনদ দেয় বাংলাদেশ সরকার। ৫৬ বছর মধুপুরে কাটানোর পর ২০১৬ সালে মার্কিন যুক্তরাষ্ট্রে ফিরে যান। সেখানে তিনি মিশিগানে অবস্থান করছিলেন।

মধুপুরের জয়েনশাহী আদিবাসী উন্নয়ন পরিষদের সভাপতি ইউজিন নকরেক বলেন, ‘মধুপুরের আদিবাসীদের উন্নয়নে ফাদার হোমরিক অনেক অবদান রেখেছেন। তাঁকে এ অঞ্চলের আদিবাসীরা চিরদিন মনে রাখবে।’

সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে শোক প্রকাশ করছেন অনেকেই। নকরেক পেট্রোস লিখেছেন, ‘ওপারে ভালো থাকবেন ফাদার।’ ফিডেল ডি সাংমা লিখেছেন ‘যেখানেই থাক সুখে থাক তুমি। সৃষ্টিকর্তা তোমাকে চিরশান্তি দান করুক।’

বিজ্ঞাপন
বাংলাদেশ থেকে আরও পড়ুন
মন্তব্য করুন