মানবতাবিরোধী অপরাধে রাজশাহীর সাত্তারের মৃত্যুদণ্ড

বিজ্ঞাপন

মুক্তিযুদ্ধকালে মানবতাবিরোধী অপরাধের মামলায় রাজশাহীর বোয়ালিয়ার আব্দুস সাত্তার ওরফে টিপু সুলতানকে মৃত্যুদণ্ডের আদেশ দিয়েছেন আন্তর্জাতিক অপরাধ ট্রাইব্যুনাল।

ট্রাইব্যুনালের চেয়ারম্যান বিচারপতি শাহিনুর ইসলামের নেতৃত্বাধীন তিন সদস্যের বিচারিক প্যানেল আজ বুধবার এই মামলার রায় ঘোষণা করেন।

গত ১৭ অক্টোবর এই মামলার বিচারকাজ শেষ হয়। সেদিন মামলাটি রায়ের জন্য অপেক্ষমাণ (সিএভি) রেখেছিলেন ট্রাইব্যুনাল। গতকাল মঙ্গলবার ট্রাইব্যুনাল রায়ের জন্য আজকের দিন ধার্য করেন।

২০১৭ সালের ২ মে এই মামলার তদন্ত শুরু হয়। গত বছরের ২৭ মার্চ আসামি সাত্তারের বিরুদ্ধে তদন্ত প্রতিবেদন দেয় ট্রাইব্যুনালের তদন্ত সংস্থা।

সাত্তারের বিরুদ্ধে অপহরণ, আটক, নির্যাতন, লুটতরাজ, হত্যাসহ মানবতাবিরোধী অপরাধের দুটি অভিযোগ আমলে নিয়ে গত বছরের ৮ আগস্ট অভিযোগ গঠন করেন ট্রাইব্যুনাল।

তদন্ত কর্মকর্তাসহ মোট ১৪ জন এই মামলায় সাক্ষ্য দেন।

রায়ের প্রতিক্রিয়ায় রাষ্ট্রপক্ষের আইনজীবী মোখলেসুর রহমান সাংবাদিকদের বলেন, রায়ে তাঁরা সন্তুষ্ট।

আসামির আইনজীবী গাজী এম এইচ তামিম সাংবাদিকদের বলেন, এই রায়ের বিরুদ্ধে আপিল করবেন তাঁর মক্কেল।

ট্রাইব্যুনালের তদন্ত সংস্থা জানায়, মুক্তিযুদ্ধের সময় আসামি সাত্তার জামায়াতে ইসলামীর ছাত্র সংগঠন ‘ইসলামী ছাত্র সংঘের রাজনীতি করতেন। পরবর্তী সময়ে তিনি ইসলামী ছাত্রশিবিরের রাজনীতি করেন।

২০১৭ সালের ১ জানুয়ারি বিস্ফোরক দ্রব্য নিয়ন্ত্রণ আইনের মামলায় মতিহার থানার পুলিশ সাত্তারকে গ্রেপ্তার করে। পরবর্তী সময়ে মানবতাবিরোধী অপরাধের মামলায় তাঁকে গ্রেপ্তার দেখানো হয়।

বিজ্ঞাপন
মন্তব্য পড়ুন 0
বিজ্ঞাপন