মারধর ও হত্যাচেষ্টার অভিযোগে সাবেক গণপূর্ত প্রতিমন্ত্রী আবদুল মান্নান খান ও তাঁর সমর্থকদের বিরুদ্ধে নালিশি মামলা করা হয়েছে। গতকাল সোমবার ঢাকার মুখ্য বিচারিক হাকিম আদালতে জননেত্রী পরিষদের সভাপতি এ বি সিদ্দিকী নালিশি এ মামলা করেন।

বিচারিক হাকিম নাজমুন নাহার অভিযোগের বিষয়ে তদন্ত করে দোহার থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তাকে প্রতিবেদন দাখিল করার আদেশ দিয়েছেন।

মামলার আরজিতে বলা হয়, ১৬ ডিসেম্বর ঢাকার দোহার উপজেলার জয়পাড়া পাইলট উচ্চবিদ্যালয় মাঠে বিজয় দিবস উপলক্ষে সমাবেশ হয়। ওই সমাবেশে আবদুল মান্নান খানের নাম ঘোষণা না করায় তাঁর লোকজন অতর্কিত হামলা করে এবং সমাবেশ মঞ্চে থাকা বঙ্গবন্ধুর ছবিসংবলিত ব্যানার ছিঁড়ে পদদলিত করে। এ সময় বাধা দিলে আসামিরা বাদীকে মারধর ও হত্যার চেষ্টা করেন। আবদুল মান্নান খানের সন্ত্রাসী বাহিনী বাদীকে এলোপাতাড়ি কিল-ঘুষি মেরে বিভিন্ন স্থানে জখম করে ও ককটেলের বিস্ফোরণ ঘটিয়ে জনমনে আতঙ্ক তৈরি করে।

আরজিতে আরও বলা হয়, মান্নান খান ও তাঁর লোকজন সমাবেশে উপস্থিত সাংসদ সালমা ইসলামের সামনে দোহারের উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা মো. নূরুল কবির ভূঁইয়াকে গালিগালাজ করেন।

বিজ্ঞাপন
বাংলাদেশ থেকে আরও পড়ুন
মন্তব্য করুন