default-image

বাংলাদেশে করোনাভাইরাসের সংক্রমণের প্রেক্ষিতে প্রথম দফায় চারটি ফ্লাইটে সাড়ে আটশ যুক্তরাজ্যের নাগরিকের দেশে ফেরার ব্যবস্থা করেছে ঢাকায় দেশটির হাইকমিশন। এবার আরও পাঁচটি ফ্লাইটে যুক্তরাজ্য হাইকমিশন তাদের নাগরিকদের লন্ডনে ফিরিয়ে নিচ্ছে।

ঢাকায় যুক্তরাজ্যের হাইকমিশনার রবার্ট ডিকসন রোববার সকালে হাইকমিশনের ফেসবুক পেজে এক ভিডিও বার্তায় এ তথ্য জানান।

যুক্তরাজ্যের পররাষ্ট্র দপ্তরের ওয়েবসাইট এবং ঢাকায় যুক্তরাজ্য হাইকমিশনের ফেসবুক পেজ থেকে জানা গেছে, প্রথম দফায় চারটি ফ্লাইটের পর এবার আরও পাঁচটি ফ্লাইট যুক্তরাজ্যের নাগরিকদের ঢাকা থেকে লন্ডনে নিয়ে যাওয়া হচ্ছে। ওই পাঁচটি ফ্লাইট এপ্রিলের ২৯ এবং মে মাসের ১, ৩, ৫ ও ৭ তারিখ ঢাকা ছেড়ে যাবে। এর মধ্যে ৩ মের ফ্লাইটটি যুক্তরাজ্যের নাগরিকদের সরাসরি ঢাকা থেকে লন্ডনে নিয়ে যাবে। বাকী চারটি ফ্লাইট সিলেটে অবস্থানরত যুক্তরাজ্যের নাগরিকদের ঢাকা হয়ে লন্ডন নিয়ে যাবে।

যুক্তরাজ্যের পর্যটক, স্বল্পতম সময়ের জন্য বাংলাদেশে বেড়াতে আসা যুক্তরাজ্যের নাগরিক এবং তাদের ওপর নির্ভরশীল লোকজনকে এসব ফ্লাইটে দেশে ফিরিয়ে নেওয়ার ব্যবস্থা করা হয়েছে। যুক্তরাজ্য ফিরতে যে সব লোকজন এরই মধ্যে কর্পোরেট ট্রাভেল ম্যানেজমেন্টে (সিটিএম) নিবন্ধিত হয়েছেন, তাদের নতুন করে নিবন্ধনের প্রয়োজন নেই। এতে যুক্তরাজ্যের কোন নাগরিকের দেশে ফেরাকে জটিল করবে।

রবার্ট গিবসন জানান, প্রথম দফার শেষ বা চতুর্থ ফ্লাইট রোববার বিকেলে যুক্তরাজ্যের নাগরিকদের নিয়ে ঢাকা ছাড়ছে।


প্রসঙ্গত. বৃটিশ এয়ারওয়েজের ভাড়া করা বিমানে বাংলাদেশ ছাড়ছেন যুক্তরাজ্যের নাগরিকেরা।

বিজ্ঞাপন
বাংলাদেশ থেকে আরও পড়ুন
মন্তব্য করুন