বিজ্ঞাপন


এ ঘটনায় এফএক্সবি স্বাস্থ্যমন্ত্রী জাহিদ মালেক, স্বাস্থ্য ও পরিবারকল্যাণ মন্ত্রণালয়ের স্বাস্থ্যসেবা বিভাগের সচিব লোকমান হোসেন মিয়া এবং স্বাস্থ্যসেবা বিভাগের অতিরিক্ত সচিব কাজী জেবুন্নেছাসহ সংশ্লিষ্ট ব্যক্তিদের শাস্তি দাবি করেছে।

এফএক্সবির বিবৃতিতে বলা হয়, দমনমূলক অফিশিয়াল সিক্রেটস অ্যাক্ট, ১৯২৩, ডিজিটাল সুরক্ষা আইন, ২০১৮ উভয়ই বাতিল করতে হবে, যা তথ্য অধিকার আইন, ২০০৯-এর বিরোধী এবং মতপ্রকাশের স্বচ্ছতা এবং সরকারের জবাবদিহি হ্রাস করে।

বিবৃতিতে সই করেছেন পেন ইন্টারন্যাশনাল বাংলাদেশের সেক্রেটারি জেনারেল সৈয়দা আইরিন জামান, আর্টিকেল ১৯-এর দক্ষিণ এশিয়ার আঞ্চলিক পরিচালক ফারুখ ফয়সল, ইস্টারন্যাশনাল ফেডারেশন অব জার্নালিস্টের প্রতিনিধি খায়রুজ্জামান কামাল, ভয়েসের নির্বাহী পরিচালক আহমেদ স্বপন মাহমুদ, কমিটি টু প্রটেক্ট জার্নালিস্টসের প্রতিনিধি মইনুল ইসলাম খান, ফ্রন্টলাইন ডিফেন্ডার্সের প্রতিনিধি সাঈদ আহমেদ, বাংলাদেশ মানবাধিকার সাংবাদিক ফোরামের সদস্য আহমদ উল্লাহ, সিসিডি বাংলাদশের পরিচালক জি এম মর্তুজা ও রিপোটার্স উইদাউট বর্ডারসের প্রতিবেদক সেলিম সামাদ।

বাংলাদেশ থেকে আরও পড়ুন
মন্তব্য করুন
বিজ্ঞাপন
বিজ্ঞাপন