default-image

রাজধানীর কেন্দ্রীয় শহীদ মিনারের কাছ থেকে এক কিশোরীর লাশ উদ্ধার করা হয়েছে।

গতকাল শনিবার দিবাগত রাত তিনটার দিকে কিশোরীকে নিথর অবস্থায় উদ্ধার করে ঢাকা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে নেওয়া হয়। সেখানে তাকে মৃত ঘোষণা করেন কর্তব্যরত চিকিৎসক।

নিহত কিশোরীর বয়স আনুমানিক ১৬ বছর। ময়নাতদন্তের জন্য তার লাশ ঢাকা মেডিকেল কলেজের মর্গে রাখা হয়েছে।

ঢাকা মেডিকেল কলেজ পুলিশ ফাঁড়ির সহকারী উপপরিদর্শক (এএসআই) আবদুল খান প্রথম আলোকে জানান, গত রাতে কয়েকজন নারী ওই কিশোরীকে নিথর অবস্থায় হাসপাতালে নিয়ে আসেন।

শাহবাগ থানার পুলিশ বলছে, আলামত দেখে তারা ধারণা করছে, কিশোরীকে ধর্ষণের চেষ্টা করা হয়েছিল।

বিজ্ঞাপন

কেন্দ্রীয় শহীদ মিনার এলাকায় দায়িত্বরত গোয়েন্দা সূত্রগুলো আজ রোববার প্রথম আলোকে জানায়, গতকাল রাত তিনটা থেকে সাড়ে তিনটার দিকে কেন্দ্রীয় শহীদ মিনারের দক্ষিণ-পশ্চিম পাশের একটি কাঁঠালগাছ থেকে ওই কিশোরীর ঝুলন্ত দেহ উদ্ধার করেন তিনজন ছিন্নমূল নারী। ঢাকা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে নেওয়া হলে কর্তব্যরত চিকিৎসক মেয়েটিকে মৃত ঘোষণা করেন।

কেন্দ্রীয় শহীদ মিনার এলাকাটি রাজধানীর শাহবাগ থানার অন্তর্গত। এই থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) মোহাম্মদ মামুন অর রশীদ প্রথম আলোকে বলেন, ‘কেন্দ্রীয় শহীদ মিনার এলাকায় অনেক ভবঘুরে থাকে। মেয়েটিও সম্ভবত ভবঘুরে। তার লাশের ধরন দেখে আমরা ধারণা করছি, তাকে ধর্ষণের চেষ্টা করা হয়েছিল। কিন্তু তা করতে না পেরে মেয়েটিকে ওড়না দিয়ে গলায় ফাঁস লাগিয়ে হত্যা করা হয়েছে বলে ধারণা করা হচ্ছে।’

কিশোরীর লাশ উদ্ধারের ঘটনায় মামলা দায়ের বিষয়টি প্রক্রিয়াধীন আছে বলে জানায় শাহবাগ থানার পুলিশ।

বাংলাদেশ থেকে আরও পড়ুন
মন্তব্য করুন