বিজ্ঞাপন
বিজ্ঞাপন

পুলিশ জানায়, আরিফা ফকিরহাটে মায়ের ভাড়া বাড়িতে ছিলেন। সোমবার রাত সাড়ে ৯টার দিকে ঘরে ঢুকে স্বামী মো. হেলাল (২৫) তাঁকে কুপিয়ে হত্যা করার পর পালিয়ে যান। পারিবারিক কলহের জেরে ওই হত্যাকাণ্ড বলে প্রাথমিকভাবে ধারণা করছে পুলিশ।

নিহত আরিফা আক্তার ফকিরহাট উপজেলার ধনপোতা এলাকার মো. আরিফ আলী শেখের মেয়ে। অভিযুক্ত মো. হেলাল খুলনার দিঘোলিয়া উপজেলার সেনহাটি এলাকার বাসিন্দা।

আরিফার পরিবারের বরাত দিতে ফকিরহাট থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) আবু সাইদ মোহাম্মাদ খায়রুল আনাম বলেন, প্রেমের সম্পর্কের মাধ্যমে ২০১৩ সালে আরিফাকে বিয়ে করেন হেলাল। তাঁদের সংসারে ১৩ মাস বয়সী একটি পুত্রসন্তান রয়েছে। তাঁরা সন্তান নিয়ে খুলনা শহরে একটি ভাড়া বাসায় থাকতেন। গত শুক্রবার স্বামীর সঙ্গে ঝগড়া করে শিশুসন্তান নিয়ে ফকিরহাটের শয়ামবাগাতে মায়ের বাসায় চলে আসেন।

রাতে হঠাৎ ওই বাসায় ঢুকে স্বামী হেলাল আরিফাকে এলোপাতাড়ি কুপিয়ে পালিয়ে যান। তিনি আরও বলেন, ‘খবর পেয়ে আমরা লাশটি উদ্ধার করেছি। অভিযুক্ত হেলালকে গ্রেপ্তারের চেষ্টা চলছে।’

বাংলাদেশ থেকে আরও পড়ুন
মন্তব্য করুন
বিজ্ঞাপন
বিজ্ঞাপন