মুক্তিযুদ্ধ, শিক্ষা, ক্রীড়াসহ সাতটি ক্ষেত্রে বিশেষ অবদানের জন্য সাতজনকে একুশে স্মারক সম্মাননা পদক দিয়েছে চট্টগ্রাম সিটি করপোরেশন। এ ছাড়া সিটি করপোরেশনের একুশে সাহিত্য পুরস্কার পেয়েছেন ছয়জন।
সম্মাননা ও পুরস্কার প্রদান উপলক্ষে গতকাল রোববার বিকেলে মুসলিম ইনস্টিটিউট চত্বরে বিশেষ অনুষ্ঠানের আয়োজন করে সিটি করপোরেশন। অনুষ্ঠানে সিটি মেয়র আ জ ম নাছির উদ্দীন পদক ও পুরস্কার পাওয়া ব্যক্তি ও তাঁদের পরিবারের সদস্যদের হাতে ক্রেস্ট ও সনদ তুলে দেন।
এ বছর একুশে স্মারক সম্মাননা পাওয়া সাতজনের মধ্যে শিক্ষায় চট্টগ্রাম কলেজের সাবেক অধ্যক্ষ রওশন আক্তার হানিফ (মরণোত্তর), ক্রীড়ায় চট্টগ্রাম বন্দর কর্তৃপক্ষ ও চট্টগ্রাম উন্নয়ন কর্তৃপক্ষের সাবেক চেয়ারম্যান প্রকৌশলী মাহমুদুল ইসলাম (মরণোত্তর), সাংবাদিকতায় আ জ ম ওমর (মরণোত্তর) এবং সমাজসেবায় চট্টগ্রাম পৌরসভার সাবেক চেয়ারম্যান ফজল করিমের (মরণোত্তর) পক্ষে তাঁদের পরিবারের সদস্যরা ক্রেস্ট ও সনদ গ্রহণ করেন।
এ ছাড়া বিদ্যোৎসাহী হিসেবে সাবেক কমিশনার মোহাম্মদ জাকারিয়া, মুক্তিযুদ্ধে সিরু বাঙালি ও সাংস্কৃতিক ক্ষেত্রে অরুণ চন্দ্র বণিকের হাতে ক্রেস্ট ও সনদ তুলে দেন সিটি করপোরেশনের মেয়র আ জ ম নাছির।
সাহিত্য পুরস্কার পেয়েছেন কবিতায় ফাউজুল কবির, শিশুসাহিত্যে রাশেদ রউফ, বিশ্বসাহিত্যে শেখ খুরশীদ আনোয়ার, প্রবন্ধে হাফিজ রশিদ খান ও গবেষণায় নূর মোহাম্মদ রফিক। তাঁদের হাতে ক্রেস্ট, সনদ ও ১৫ হাজার টাকা তুলে দেন মেয়র। কথাসাহিত্যে কামরুজ্জামান জাহাঙ্গীরের পক্ষে তাঁর স্ত্রী নারগিস নাহার পুরস্কার গ্রহণ করেন।
পদক ও পুরস্কার প্রদান অনুষ্ঠানে সিটি মেয়র আ জ ম নাছির উদ্দীন বলেন, ভালো কাজের জন্য প্রশংসা প্রয়োজন। অন্যায় ও অনৈতিক কাজের জন্য সমালোচনা হলে মানুষ সংশোধন হওয়ার সুযোগ পায়। পরসমালোচনা ও পরনিন্দা না করে যদি আত্মসমালোচনার মাধ্যমে নিজেদের সংশোধন করা যায়, তাহলে সমাজ ও দেশ উপকৃত হবে।
সিটি করপোরেশনের শিক্ষা ও স্বাস্থ্যবিষয়ক স্থায়ী কমিটির সভাপতি নাজমুল হকের সভাপতিত্বে অনুষ্ঠানে স্বাগত বক্তব্য দেন নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেট নাজিয়া শিরিন। সঞ্চালনা করেন মেয়রের একান্ত সচিব মোহাম্মদ মঞ্জুরুল ইসলাম। উপস্থিত ছিলেন চট্টগ্রাম সাংবাদিক ইউনিয়নের সভাপতি এজাজ ইউসুফী, কবি অরুণ দাশ গুপ্ত, কাউন্সিলর মোরশেদ আকতার চৌধুরী, হাসান মুরাদ ও মোহাম্মদ ইসমাইল, সিটি করপোরেশনের প্রধান নির্বাহী কর্মকর্তা কাজী মোহাম্মদ শফিউল আলম ও সচিব রশিদ আহমদ।

বিজ্ঞাপন
মন্তব্য পড়ুন 0