বিজ্ঞাপন
বিজ্ঞাপন
default-image

রাষ্ট্রের গুরুত্বপূর্ণ ব্যক্তিবর্গ থেকে শুরু করে সাধারণ মানুষের তৃপ্ত মুখের হাসিতেই তাঁরা তৃপ্ত হন। আমাদের সন্তুষ্টিতেই তাঁরা খুঁজে নেন অর্জনের আনন্দ। আমাদের ভোজন-মুহূর্তগুলোকে নানান রেসিপিতে রাঙিয়ে দিতে ব্যস্ত থাকেন তাঁরা। পরম যত্নে নিজেদের শৈল্পিক শুভ্রতার চিহ্ন মাখিয়ে দেন সুস্বাদু রান্নায়, স্বাস্থ্যসম্মত খাবারে।

‘ভালো খাবার প্রস্তুত করার জন্য আমাদের প্রধান যে বিষয়ে গুরুত্ব দিতে হয়, সেটা হলো পরিচ্ছন্নতা নিশ্চিত করা। রান্না করার সময় বা রান্না প্রস্তুত করার সময় আমরা সব সময় সর্বোচ্চ সতর্ক থাকি, যাতে আমাদের পোশাক সব সময় পরিষ্কার-পরিচ্ছন্ন থাকে। পোশাকে যেন কোনো রকম দাগ বা ময়লা না লাগে। আর আমি প্রতিদিনের কাজ শেষে পোশাক পরিষ্কার করি। প্রতিদিন ইস্ত্রি করি।’ বলছিলেন শেফ জয় মণ্ডল।

জয় মণ্ডলের মতো অসংখ্য শেফ আমাদের তৃপ্তমুখের হাসিতেই পান কাজের অনুপ্রেরণা। এই সন্তুষ্টি নিয়েই তাঁরা খুঁজে নেন নিজের পেশার সাফল্য এবং সামনে এগিয়ে চলার আনন্দ।

শেফ বা রন্ধনশিল্পী পরিচয়ের এই ‘সাদা কাপড়ের সুপার হিরো’দের প্রতি আমাদের শ্রদ্ধা।

বাংলাদেশ থেকে আরও পড়ুন
মন্তব্য করুন
বিজ্ঞাপন
বিজ্ঞাপন