default-image

প্রধান নির্বাচন কমিশনার (সিইসি) কে এম নূরুল হুদা বলেছেন, নির্বাচনের পরিবেশ শান্ত রেখে কাজ করার জন্য নির্বাচন কমিশনের পূর্ণাঙ্গ প্রস্তুতি রয়েছে। তাঁরা আশা করছেন, সামনের নির্বাচনগুলো ভালো ও সুষ্ঠু হবে, সংঘাত হবে না।

আজ বৃহস্পতিবার নির্বাচন ভবনে নির্বাচন কমিশনে সংবাদ সংগ্রহে কর্মরত গণমাধ্যমকর্মীদের সংগঠন রিপোর্টার্স ফোরাম ফর ইলেকশন অ্যান্ড ডেমোক্রেসির (আরএফইডি) এক অনুষ্ঠানে সিইসি এ কথা বলেন।

সিইসি বলেন, মে মাসের মাঝামাঝি দেশজুড়ে ইউনিয়ন পরিষদের ভোট শুরু হবে।

বিজ্ঞাপন

এর আগে ১৪ ফেব্রুয়ারি চতুর্থ এবং ২৮ ফেব্রুয়ারি পঞ্চম ধাপের পৌরসভা নির্বাচন অনুষ্ঠিত হবে। শেষ ধাপের বাদ বাকি পৌরসভা এবং কিছু ইউনিয়ন পরিষদের নির্বাচন ৭ এপ্রিল করার প্রস্তাব এসেছে। ১৭ ফেব্রুয়ারি কমিশন সভায় বিষয়টি চূড়ান্ত হবে।

ইউনিয়ন পরিষদের নির্বাচন প্রসঙ্গে সাংবাদিকদের প্রশ্নের জবাবে সিইসি বলেন, ভোটার তালিকা চূড়ান্ত করে সিডি তৈরির বিষয় ও সামনে রমজান মাস রয়েছে। ৭ এপ্রিল কিছু নির্বাচন হবে। তবে ঈদের পরে মধ্য মে মাসে ইউপি নির্বাচন শুরু হবে।

গত তিনটি ধাপের পৌরসভা নির্বাচনে সহিংসতা ও অনিয়মের বেশ কিছু ঘটনা ঘটেছে।

বাংলাদেশ থেকে আরও পড়ুন
মন্তব্য করুন