ঝিনাইদহের কালীগঞ্জে সড়ক দুর্ঘটনায় আমিনুর রহমান (২৫) নামের এক যুবক নিহত হয়েছেন। তিনি ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের শান্তি ও সংঘর্ষ অধ্যয়ন বিভাগের ২০১২-১৩ শিক্ষাবর্ষের স্নাতকোত্তর শ্রেণির শিক্ষার্থী ছিলেন। আজ শনিবার বেলা সাড়ে ১১টায় দিকে উপজেলার শিবনগরে কালীগঞ্জ-কোটচাঁদপুর সড়কের গুলশান মোড়ে এলাকায় এই দুর্ঘটনা ঘটে।

এ দুর্ঘটনায় আব্দুস সাত্তার (৫৫), মিনি খাতুন (৪০), ইকবাল হোসেন (২৮) ও রিতু পারভিন (২০) নামের চার ব্যক্তি আহত হয়েছেন। তাঁদের চিকিৎসার জন্য যশোর সদর হাসপাতালে পাঠানো হয়েছে।

নিহত আমিনুরের বাবার নাম জয়নাল আবেদিন। যশোর সদর উপজেলার চুড়ামনকাটি এলাকার বাগডাঙ্গা গ্রামে তাঁর বাড়ি।

আমিনুরের আত্মীয় ফিরোজ মাহমুদের ভাষ্য, যাত্রীবাহী একটি মাহেন্দ্রতে করে তাঁরা বাগডাঙ্গা গ্রাম থেকে কালীগঞ্জ উপজেলার বালিয়াডাঙ্গা গ্রামে যাচ্ছিলেন। মাহেন্দ্রটি গুলশান মোড়ে শ্যালো ইঞ্জিনচালিত একটি নসিমনকে জায়গা ছেড়ে দিতে গেলে চালক নিয়ন্ত্রণ হারান। এতে মাহেন্দ্রটি সড়কের পাশে দাঁড়িয়ে থাকা একটি ট্রাকের সঙ্গে সজোরে ধাক্কা খায়। এতে তিনি ও আমিনুরসহ পাঁচ যাত্রী আহত হন। তাঁদের উদ্ধার করে কালীগঞ্জ হাসপাতালে নেওয়া হয়। আমিনুর গত বছর ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয় থেকে স্নাতকোত্তর পাস করেন।

কালীগঞ্জ থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) আনোয়ার হোসেন বলেন, আহত ব্যক্তিদের কালীগঞ্জ হাসপাতালে নেওয়া হলে ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের ছাত্র আমিনুর রহমান মারা যান। আহত বাকি চারজনকে উন্নত চিকিৎসার জন্য যশোর পাঠানো হয়েছে।

বিজ্ঞাপন
মন্তব্য পড়ুন 0