ডেমরা থানার উপপরিদর্শক (এসআই) আবদুল আওয়াল প্রথম আলোকে বলেন, ‘নিহত সোহেলের গলা, পেট, পিঠ ও মাথায় আঘাতের চিহ্ন রয়েছে। প্রাথমিকভাবে মনে হচ্ছে, এটি হত্যাকাণ্ড। আমরা তদন্ত করে রহস্য উদ্‌ঘাটনের চেষ্টা করছি।’

আবদুল আওয়াল আরও বলেন, স্থানীয় লোকজনের মাধ্যমে খবর পেয়ে ঘটনাস্থল থেকে লাশ উদ্ধার করা হয়েছে। পরে বিকেলে ময়নাতদন্তের জন্য লাশ স্যার সলিমুল্লাহ মেডিকেল কলেজ মিটফোর্ড হাসপাতালের মর্গে পাঠানো হয়।

পুলিশ সূত্রে জানা গেছে, সোহেলের গ্রামের বাড়ি নওগাঁর মান্দায়। বাবার নাম মকবুল হোসেন। সোহেল একসময় নারায়ণগঞ্জে একটি বেসরকারি প্রতিষ্ঠানে চাকরি করতেন। কয়েক দিন আগে তিনি সাভারে খালাশাশুড়ির বাড়িতে বেড়াতে আসেন। সেখান থেকে গত শনিবার নারায়ণগঞ্জে সাবেক সহকর্মীদের সঙ্গে দেখা করতে যান।

রাজধানী থেকে আরও পড়ুন
মন্তব্য করুন