পুলিশ জানিয়েছে, বাসটির পেছনের চাকার নিচ থেকে মুন্না মিয়াকে উদ্ধার করে ঢাকা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে আনলে চিকিৎসক তাঁকে মৃত ঘোষণা করেন। নিহত যুবক মতিঝিলে একটি প্রতিষ্ঠানে কম্পিউটার অপারেটর হিসেবে কাজ করতেন। তাঁর বাড়ি চাঁদপুর সদরে বলে জানা গেছে। তিনি নারায়ণগঞ্জের সানারপাড় এলাকায় থাকতেন।

ওয়ারি থানার উপপরিদর্শক (এসআই) তাপস মণ্ডল প্রথম আলোকে বলেন, বাসটি যাত্রাবাড়ীর দিকে যাচ্ছিল। প্রাথমিকভাবে ধারণা করা হচ্ছে, ছেলেটি অফিস শেষে বাসটিতে উঠতে গিয়ে গেট থেকে পড়ে চাকার নিচে চলে যায়। ময়নাতদন্তের জন্য তাঁর মরদেহ হাসপাতালের মর্গে রাখা হয়েছে।

এসআই তাপস জানান, বাসটি রেখে চালক পালিয়েছেন। তাঁকে আটকের চেষ্টা চলছে।
নিহত ব্যক্তির সহকর্মী রফিকুল ইসলাম বলেন, মুন্না অফিস শেষ করে বাসার উদ্দেশে বের হয়েছিলেন। পরে পুলিশ ফোন করে সড়ক দুর্ঘটনার বিষয়টি তাঁদের জানিয়েছে।

রাজধানী থেকে আরও পড়ুন
মন্তব্য করুন