default-image

করোনাভাইরাসে গত ২৪ ঘণ্টায় (গতকাল শনিবার সকাল ৮টা থেকে আজ রোববার সকাল ৮টা পর্যন্ত) ৭ জনের মৃত্যু হয়েছে। এ সময় নতুন করে করোনার সংক্রমণ শনাক্ত হয়েছে ৩২৭ জনের। একই সময়ে সুস্থ হয়েছেন ৪৭৫ জন।

আজ রোববার স্বাস্থ্য অধিদপ্তরের নিয়মিত সংবাদ বিজ্ঞপ্তিতে এ কথা জানানো হয়েছে।

গত ২৪ ঘণ্টায় ১৪ হাজার ৩৬ জনের নমুনা পরীক্ষা করা হয়েছে। নমুনা পরীক্ষা বিবেচনায় রোগী শনাক্তের হার ২ দশমিক ৩৩ শতাংশ।

গতকালের তুলনায় করোনায় মৃত্যু বেড়েছে। তবে শনাক্ত কমেছে। গতকাল করোনাভাইরাসে ৫ জনের মৃত্যু হয়েছে। আর করোনা শনাক্ত হয়েছিল ৩৫০ জনের।

বিজ্ঞাপন

আজকের বিজ্ঞপ্তির তথ্য অনুযায়ী, এখন পর্যন্ত দেশে মোট ৫ লাখ ৪৩ হাজার ৩৫১ জনের করোনার সংক্রমণ শনাক্ত হয়েছে। এর মধ্যে ৮ হাজার ৩৪৯ জনের মৃত্যু হয়েছে। আর সুস্থ হয়েছেন ৪ লাখ ৯১ হাজার ৩৬৭ জন।

স্বাস্থ্য অধিদপ্তরের আজকের হিসাব অনুযায়ী, গত ২৪ ঘণ্টায় মৃত ৭ জনের প্রত্যেকেই পুরুষ। তাঁরা প্রত্যেকেই হাসপাতালে মারা গেছেন। এর মধ্যে ছয়জনের বয়স ৬০–এর বেশি। বাকি একজনের বয়স ২১ থেকে ৩০ বছরের মধ্যে। মৃতদের মধ্যে ছয়জনই ঢাকাতে মারা গেছেন। একজন মারা গেছেন চট্টগ্রামে।

বাংলাদেশে গত বছরের ৮ মার্চ প্রথম করোনা রোগী শনাক্ত হয়। দেশে সংক্রমণ শুরুর দিকে রোগী শনাক্তের হার কম ছিল। গত মে মাসের মাঝামাঝি থেকে সংক্রমণ বাড়তে শুরু করে। আগস্টের তৃতীয় সপ্তাহ পর্যন্ত সেটি ২০ শতাংশের ওপরে ছিল। এরপর থেকে নতুন রোগীর পাশাপাশি শনাক্তের হারও কমতে শুরু করেছিল। মাস দুয়েক সংক্রমণ নিম্নমুখী থাকার পর গত নভেম্বরের শুরুর দিক থেকে নতুন রোগী ও শনাক্তের হারে ঊর্ধ্বমুখী প্রবণতা শুরু হয়। তবে ডিসেম্বর থেকে সংক্রমণ আবার কমতে শুরু করে। তিন সপ্তাহের বেশি সময় ধরে রোগী শনাক্তের হার ৫ শতাংশের নিচে।

বিজ্ঞাপন
করোনাভাইরাস থেকে আরও পড়ুন
মন্তব্য করুন