বিজ্ঞাপন
বিভাগের আট জেলার মধ্যে এ পর্যন্ত বগুড়া জেলায় সর্বোচ্চ ৪৮৩ জনের মৃত্যু হয়েছে। দ্বিতীয় সর্বোচ্চ ২০৪ জনের মৃত্যু হয়েছে রাজশাহী জেলায়।

বিভাগে আগের দিনের তুলনায় আজ নমুনা পরীক্ষার সংখ্যা কমেছে। এর আগের দিন বিভাগে এক দিনে সর্বোচ্চ ৬ হাজার ১০৮ জনের নমুনা পরীক্ষায় ১ হাজার ২৬৯ জনের করোনা শনাক্ত হয়েছিল। শনাক্তের হার ছিল ২০ দশমিক ৭৭ শতাংশ। অর্থাৎ গত ২৪ ঘণ্টায় বিভাগে নমুনা পরীক্ষার সংখ্যা কমার পাশাপাশি শনাক্তের সংখ্যা কমলেও শনাক্তের হার ২ শতাংশ বেড়েছে।

গত ২৪ ঘণ্টায় নতুন শনাক্ত ১ হাজার ৪৫ জন নিয়ে বিভাগে মোট করোনা রোগীর সংখ্যা দাঁড়িয়েছে ৭২ হাজার ৫৭১। নতুন শনাক্ত ব্যক্তিদের মধ্যে রাজশাহী জেলায় সর্বোচ্চ ২৭০ জনের করোনা শনাক্ত হয়েছে।

এ ছাড়া চাঁপাইনবাবগঞ্জে ৫৩ জন, নওগাঁয় ৫৬ জন, নাটোরে ৯১ জন, জয়পুরহাটে ২০ জন, বগুড়ায় ১৮০ জন, সিরাজগঞ্জে ১৪৫ জন ও পাবনায় ২৩০ জনের করোনা শনাক্ত হয়েছে। মোট শনাক্ত রোগীর মধ্যে জুলাই মাসের ১৬ দিনে ১৬ হাজার ৮১৭ জনের করোনা শনাক্ত হয়েছে।

১২ দিনে সর্বনিম্ন মৃত্যু

রাজশাহী বিভাগে গত ২৪ ঘণ্টায় ৮ জনের মৃত্যু নিয়ে বিভাগে মোট মৃত্যুর সংখ্যা দাঁড়াল ১ হাজার ১৩৩। গত ২৪ ঘণ্টায় মারা যাওয়া ব্যক্তিদের মধ্যে বগুড়ায় সর্বোচ্চ ৩ জনের মৃত্যু হয়েছে। এ ছাড়া রাজশাহী ও নওগাঁয় ২ জন করে এবং সিরাজগঞ্জে ১ জন মারা গেছেন।

বিভাগের আট জেলার মধ্যে এ পর্যন্ত বগুড়া জেলায় সর্বোচ্চ ৪৮৩ জনের মৃত্যু হয়েছে। দ্বিতীয় সর্বোচ্চ ২০৪ জনের মৃত্যু হয়েছে রাজশাহী জেলায়। এ ছাড়া চাঁপাইনবাবগঞ্জে ১২৮ জন, নওগাঁয় ১১১ জন, নাটোরে ৯২ জন, জয়পুরহাটে ৪৬ জন, সিরাজগঞ্জে ৩৯ জন এবং পাবনায় ৩০ জন করোনায় মারা গেছেন।

গত বছরের ২৬ এপ্রিল রাজশাহী বিভাগে প্রথম করোনা রোগী মারা যান। এর মধ্যে গত বছর মোট মারা গেছেন ৩৬৬ জন। আর চলতি বছর এখন পর্যন্ত ৭৬৭ জন মারা গেছেন। এর মধ্যে গেল জুন মাসেই মারা গেছেন ৩২৬ জন। চলতি মাসে এ পর্যন্ত ২৬০ জনের মৃত্যু হয়েছে।

এদিকে রাজশাহী বিভাগে গত ২৪ ঘণ্টায় আরও ৫০৩ জন সুস্থ হয়েছেন। এ নিয়ে বিভাগে মোট সুস্থ হয়েছেন ৪৮ হাজার ৯১২ জন। বর্তমানে বিভাগের ৮ জেলার বিভিন্ন হাসপাতালে চিকিৎসাধীন করোনা রোগীর সংখ্যা ৯ হাজার ৪৫৩। এর মধ্যে গত ২৪ ঘণ্টায় হাসপাতালে ভর্তি হয়েছেন ২০০ জন। বিভাগে হাসপাতালের বাইরে বাড়িতে চিকিৎসা নিচ্ছেন ১৪ হাজার ২০৬ জন।

করোনাভাইরাস থেকে আরও পড়ুন
মন্তব্য করুন
বিজ্ঞাপন
বিজ্ঞাপন