বরিশালের আগৈলঝাড়ায় গত শুক্রবার রাতে ‘বন্দুকযুদ্ধের’ ঘটনায় নিহত যুবদল ও জাসাসের দুই নেতার মরদেহ নিজ নিজ বাড়িতে দাফন করা হয়েছে। ওই ‘বন্দুকযুদ্ধের’ ঘটনায় গত শনিবার দুটি মামলা করেছে পুলিশ।
আগৈলঝাড়া থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) মনিরুল ইসলাম জানান, শনিবার সন্ধ্যায় বরিশাল শেরে-ই-বাংলা মেডিকেল কলেজের মর্গে ময়নাতদন্ত শেষে আগৈলঝাড়া উপজেলার গৈলা ইউনিয়নের যুবদলের সাংগঠনিক সম্পাদক টিপু সুলতানের মরদেহ তাঁর বড় ভাই খলিলুর রহমানের কাছে হস্তান্তর করা হয়। আগৈলঝাড়া উপজেলা জাতীয়তাবাদী সামাজিক সাংস্কৃতিক সংগঠনের (জাসাস) সাংগঠনিক সম্পাদক কবির হোসেন মোল্লার মরদেহ হস্তান্তর করা হয়েছে তাঁর বাবা আবুল হোসেন মোল্লার কাছে।
টিপু ও কবিরের স্বজনেরা জানান, শনিবার রাতেই আগৈলঝাড়ার নগরবাড়ি গ্রামে কবিরের নিজ বাড়িতে জানাজা শেষে মরদেহ দাফন করা হয়। গতকাল রোববার সকাল নয়টায় একই গ্রামে নিজ বাড়িতে টিপুর জানাজা শেষে মরদেহ দাফন করা হয়। স্থানীয় সূত্রগুলো জানায়, দুজনের জানাজায় উল্লেখযোগ্যসংখ্যক মানুষ অংশ নেয়। তবে বিএনপির নেতা-কর্মীদের তেমন দেখা যায়নি।
আগৈলঝাড়া থানা সূত্র জানায়, ‘বন্দুকযুদ্ধের’ ঘটনায় পুলিশের ওপর হামলার অভিযোগে ও বিস্ফোরক দ্রব্য আইনে শনিবার দুটি মামলা করেছেন উপপরিদর্শক (এসআই) নজরুল ইসলাম। এতে অজ্ঞাতনামা সন্ত্রাসীদের আসামি করা হয়েছে।

বিজ্ঞাপন
অপরাধ থেকে আরও পড়ুন
মন্তব্য করুন